ঢাকা: প্রতিবেশী ভারতেই সব থেকে বেশি যান বাংলাদেশি পর্যটকরা৷ ভারতের ব্যুরো অফ ইমিগ্রেশন দফতরের হিসেব এরকমই৷ ২০১৭ সালে যেসব দেশ থেকে বেশি সংখ্যায় পর্যটক ভারতে গেছে তার শীর্ষে আছে বাংলাদেশ। বিবিসি জানাচ্ছে এমন খবর৷

রিপোর্ট অনুযায়ী ২১ লক্ষ ৫৬ হাজার ৫৫৭ জন বাংলাদেশি পর্যটক ভিসা নিয়ে ভারতে গেছেন৷ এরপরেই আসছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র, ইংল্যান্ড, কানাডা, অস্ট্রেলিয়া, মালয়েশিয়া, শ্রীলংকা, রাশিয়া, জার্মানি ও ফ্রান্সের নাম।

মূলত প্রতিবেশী রাষ্ট্রে সহজলভ্য আধুনিক চিকিৎসার কারণেই বাংলাদেশ থেকে বিরাট পরিমাণ মানুষ ভারতে যান৷ বাংলাদেশিদের জন্য ভারতীয় ভিসা পাওয়ার বিষয়টি সহজ৷ বাংলাদেশের বিভিন্ন স্থানে রয়েছে এমন সেন্টার৷ তবে চিকিৎসার কারণটিও বিশেষ গুরুত্বপূর্ণ৷ কলকাতা, নয়াদিল্লি, বেঙ্গালুরু, মুম্বইয়ের বিভিন্ন হাসপাতালে বাংলাদেশিদের ভিড় প্রবল৷

বিশ্লেষণে উঠে এসেছে, ভারতের ভিসা সহজলভ্য করা, বাংলাদেশের জেলাশহর পর্যন্ত ভারতীয় ভিসা কেন্দ্র স্থাপন, কাশ্মীর, লাদাখ কিংবা সিকিমের মতো আকর্ষণীয় জায়গাগুলো পর্যটকদের জন্য উন্মুক্ত করা, বেঙ্গালুরু, চেন্নাই, মুম্বাই ও কলকাতায় বাংলাদেশী রোগীদের বেড়ে যাওয়া৷ এছাড়া রয়েছে মুসলিমদের বিভিন্ন তীর্থক্ষেত্র৷

বাংলাদেশের পর্যটন শিল্পের সঙ্গে জড়িতদের যুক্তি-মরুভূমি, বরফ, পাহাড়, সমুদ্র, পর্বত নিয়ে বিপুল বৈচিত্রের দেশ ভারত৷ ঐতিহাসিক স্থাপত্যের কেন্দ্র তাজমহল, কুতুবমিনার, ফতেপুর সিক্রি দেখতে বাংলাদেশীদের আগ্রহ প্রবল৷

বাংলাদেশের সঙ্গে প্রায় চারদিক ঘের সীমান্ত ভারতের৷ এই সীমান্তবর্তী রাজ্যগুলি যেমন পশ্চিমবঙ্গ, অসম, মেঘালয়, ত্রিপুরা ও মিজোরাম রকমারি বৈচিত্র নিয়ে রয়েছে৷ পশ্চিমবাংলা ও ত্রিপুরায় বাংলা ভাষা, বিশ্বখ্যাত শৈলশহরের আকর্ষণ কম নয়৷ তেমনই রয়েছে মেঘালয় ও মিজোরামের নিজস্ব উপজাতিয় বৈচিত্র৷ সবমিলে ভারতে এক যাত্রায় সম্পূর্ণ দেখা সম্ভব নয়৷ বারে বারে তাই বাংলাদেশিরা যাচ্ছেন ভারতে৷