বার্লিন: রাশিয়ার বিরোধী দলনেতা আলেক্সি নাভালনি জানালেন, বাহিরে থেকে কোনরকম যন্ত্রের সাহায্য ছাড়াই তিনি এবার নিজে নিজে শ্বাস নিতে সক্ষম হচ্ছেন। গত মাসে সাইবেরিয়ায় একটি মারাত্মক বিষক্রিয়ায় আক্রান্ত হওয়ার পর এটাই তার জনগণকে দেওয়া প্রথম বিবৃতি। এখন এই খবর নিশ্চিত করেছেন যে তাঁর অবস্থার উন্নতি ঘটেছে। জার্মানিতে তাঁর হাসপাতালের ঘর থেকে সামাজিক মাধ্যমে তিনি এই তথ্য পোস্ট করেন।

তাঁর সঙ্গীরা জানিয়েছেন , তিনি পুরোপুরি সুস্থ হওয়ার পরে রাশিয়ায় তাঁর বাড়িতে ফিরে যাবার পরিকল্পনা করছেন। তিনি নিজের স্ত্রী এবং দুই সন্তানকে নিয়ে তাঁর একটি ইনস্টাগ্রামের ছবি সহ একটি মন্তব্য লেখেন। সেখানে লেখেন “হ্যালো, আমি নাভালনি। আমি আপনাদের সবাইকে মিস করছি।” পাশাপাশি নাভালনি লেখেন ” এখনও আমি তেমন কিছু করতে পারি না তবে গতকাল আমি নিজেই সারা দিন শ্বাস নিতে পেরেছি,”। অজ্ঞান থাকার তিন সপ্তাহ পর তাঁর এটাই প্রথম কথা। এই পোস্টটির কয়েক ঘন্টার মধ্যে দশ লক্ষেরও বেশি মানুষ তার দেখেছে এবং লাইক দিয়েছে।

রুশ রাজনীতিতে নাভালনির সম্ভাব্য প্রত্যাবর্তনের বিষয়ে সম্ভাবনা বৃদ্ধি পায় নানা মহলে। তবে কয়েক ঘণ্টার মধ্যে, তাঁর প্রেস সচিব, কীরা ইয়ারমিশ এমন সম্ভাবনা নাকচ করে দেন । কারণ নাভালনি তার সুরক্ষার জন্য উদ্বেগের কারণে নির্বাসনেই থাকবেন।ইয়ার্মিশ টুইট করে এমন কথাই জানান।

এই প্রসঙ্গে ক্রেমলিনের রুশ প্রশাসন জানিয়েছে ,রাশিয়ান ফেডারেশনের যে কোনও নাগরিক রাশিয়া ছেড়ে যেতে পারেন এবং রাশিয়ায় ফিরে আসার ব্যপারেও তিনি স্বাধীন।

রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের একজন শীর্ষস্থানীয় বিরোধী হলেন নাভালনি। তিনি ২০শে আগস্ট প্রচারে বেরিয়ে সাইবেরিয়া থেকে মস্কোয় বিমানে আসার সময়ে মারাত্মক অসুস্থ হয়ে পড়েন। তখন জানা যায় তাঁর উপর বিষ প্রয়োগ করা হয়েছিল। পরে চিকিৎসার জন্যে তাঁকে রাশিয়া থেকে জার্মানিতে আনা হয়।

পচামড়াজাত পণ্যের ফ্যাশনের দুনিয়ায় উজ্জ্বল তাঁর নাম, মুখোমুখি দশভূজা তাসলিমা মিজি।