নয়াদিল্লি: এআইএফএফ’র সিদ্ধান্তকে চ্যালেঞ্জ জানিয়ে মিনার্ভা এফসি’র মামলার শুনানি শুক্রবার হতে পারে দিল্লি হাই কোর্টে। পুলওয়ামায় জঙ্গিহামলার ঘটনায় ১৮ ফেব্রুয়ারি শ্রীনগরে তাদের ম্যাচ খেলতে অস্বীকার করে আই লিগের ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়নরা। এব্যাপারে দেশের ফুটবল নিয়ামক সংস্থার কাছে শ্রীনগরে রিয়াল কাশ্মীরের বিরুদ্ধে ওই ম্যাচ বাতিল করার দাবি জানিয়েও লাভের লাভ কিছুই হয়নি। বরং মাঠে না নামার কারণে তিন পয়েন্ট সঙ্গে তিন গোল যায় রিয়ালের দখলে। এরপরই মামলার পথে হাঁটে রঞ্জিত বাজাজের দল।

১৪ ফেব্রুয়ারি পুলওয়ামায় ভয়ঙ্কর জঙ্গি হামলার পর ফুটবলার ও দর্শকদের নিরাপত্তার কথা মাথায় রেখে ১৮ ফেব্রুয়ারি শ্রীনগরে কাশ্মীরের বিপক্ষে ম্যাচটি বাতিল করার দাবি জানানো হয় মিনার্ভা এফসি’র পক্ষ থেকে। পরিবর্ত কোনও ভেন্যুতে ম্যাচটি আয়োজনের দাবি জানালেও পঞ্জাবের ফুটবল ক্লাবটির আবেদনে কোনওরকম কর্ণপাত করেনি এআইএফএফ। ঘোষিত সূচি অনুযায়ী রিয়াল ফুটবলাররা যথাসময়ে মাঠে নামলেও দল নিয়ে পৌঁছয়নি মিনার্ভা। ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে আদালতে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নেয় মিনার্ভা ম্যানেজমেন্ট।

মিনার্ভার তরফ থেকে আদালতের কাছে জানানো হয়, ‘ফুটবল লিগ কমিটির এই সিদ্ধান্ত ফিফা সেফটি গাইডলাইন এবং আই লিগের নিয়মবিরুদ্ধ। উপত্যকার অশান্ত পরিস্থিতি, পাশাপাশি ফুটবলার ও দর্শকদের নিরাপত্তার কথা বিবেচনা না করেই সর্বভারতীয় ফুটবল ফেডারেশন তাদের সিদ্ধান্তে অনড় থেকেছে।’ উল্লেখ্য, চলতি মাসের শুরুতে তুষারপাতের কারণে শ্রীনগরে রিয়াল কাশ্মীরের সঙ্গে বাতিল হয় মিনার্ভা ও ইস্টবেঙ্গলের ম্যাচ।

পরিবর্তে ১৮ ফেব্রুয়ারি ও ২৮ ফেব্রুয়ারি দু’টি ম্যাচের পরিবর্তিত দিন ঘোষণা করে এআইএফএফ। কিন্তু পুলওয়ামার ঘটনায় উপত্যাকার পরিস্থিতি আরও স্পর্শকাতর। তাই ফুটবলার ও দর্শকদের কথা মাথায় রাখা উচিৎ ছিল ফেডারেশনের। জানানো হয় ক্লাবের আইনজীবীর পক্ষ থেকে। মিনার্ভা এফসি’র পক্ষ থেকে জানানো হয় তাদের ক্লাবের বিদেশি ফুটবলারদের প্রতি তাদের দূতাবাসের কড়া নির্দেশ ছিল জম্মু-কাশ্মীরে না খেলার বিষয়ে। এআইএফএফ’র সিদ্ধান্তকে চ্যালেঞ্জ জানিয়ে এইসকল আবেদনের ভিত্তিতেই দিল্লি হাইকোর্টে মামলা করে ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়ন মিনার্ভা।

সেই মামলার পরিপ্রেক্ষিতে শুক্রবার দিল্লি হাইকোর্টে হতে পারে শুনানি। এদিকে চলতি মাসের শেষে কাশ্মীরে গিয়েই আই লিগের ম্যাচ খেলতে হবে ইস্টবেঙ্গলকে৷ চিঠি মারফত সেই সিদ্ধান্তই ফেডারেশনের পক্ষ থেকে কলকাতার ক্লাবকে জানানো হয়েছে৷ দলের নিরাপত্তার বিষয়ে বিশেষ জোর দেওয়া হবে বলেও জানানো হয়৷ ২৭ ফেব্রুয়ারি কাশ্মীর পৌঁছে ম্যাচের প্রস্তুতি নেমে আলেজান্দ্রোর দল৷ এরপর ২৮ ফেব্রুয়ারি শ্রীনগরের টিআরসি স্টেডিয়ামে দুপুর ২ টোয় ম্যাচ খেলবে তারা৷