মুম্বই: বুধবার ওয়াংখেড়ে স্টেডিয়ামে কিংস ইলেভেন পঞ্জাবের মুখোমুখি মুম্বই ইন্ডিয়ান্স। তার আগে মঙ্গলবার বোর্ডের অম্বুডসম্যান ডিকে জৈনের কাছে চ্যাট শোয়ে বিতর্কিত মন্তব্যের জন্য জবানবন্দি দিলেন দলের নির্ভরযোগ্য অল-রাউন্ডার হার্দিক পান্ডিয়া। বুধবার ম্যাচের দিন সকালে জবানবন্দি দেওয়ার কথা প্রতিপক্ষ কিংস ইলেভেন ওপেনার লোকেশ রাহুলের।

জানুয়ারিতে টিম ইন্ডিয়ার অস্ট্রেলিয়া সফর চলাকালীন দেশের জনপ্রিয় একটি টেলিভিশন চ্যাট শোয়ে মহিলাদের নিয়ে আপত্তিকর মন্তব্যের কারণে বোর্ডের রোষের মুখে পড়েছিলেন এই দুই ক্রিকেটার। তড়িঘড়ি তাদের দেশে ফিরিয়ে আনা হয় এবং সাময়িক নির্বাসনে পাঠানো হয়। পরে সিদ্ধান্ত পুনর্বিবেচনা করে তাদের শর্তসাপেক্ষে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ফেরানো হলেও তদন্ত চলছিলোই। তদন্তে অগ্রগতির স্বার্থেই ফ্র্যাঞ্চাইজি লিগের মাঝপথে তাদের জবানবন্দি গ্রহণ করলেন বোর্ডের অম্বুডসম্যান।

আরও পড়ুন: ম্যাচ উইনারদের হারিয়ে হাত কামড়াচ্ছেন বিরাট

রাহুল-পান্ডিয়ার জবানবন্দির বিষয়ে বলতে গিয়ে আইএএনএস-কে দেওয়া সাক্ষাতকারে বোর্ডের এক সিনিয়র কর্তা জানান, ‘আশা করা হচ্ছে বিশ্বকাপের দলগঠনের আগেই জবানবন্দির রিপোর্ট সুপ্রিম কোর্ট নিযুক্ত কমিটি অফ অ্যাডমিনিস্ট্রেটরের কাছে পেশ করা হবে।’

আরও পড়ুন: বদলাতে পারে স্বার্থের সংঘাতের শর্ত

তবে ওই বোর্ড কর্তার কথায়, যদিও এবিষয়ে নির্দিষ্ট কোনও সময়সীমা নেই। তবে মনে করা হচ্ছে আগামী সোমবার এমএসকে প্রসাদের নেতৃত্বাধীন নির্বাচক কমিটির মিটিংয়ের আগে অম্বুডসম্যান তাঁর রিপোর্ট পেশ করবেন। এক্ষেত্রে অন্যায়ের তুলনায় শাস্তির কোনওভাবেই গরিষ্ঠ হবে না। এখন দেখা যাক অম্বুডসম্যান কী রিপোর্ট পেশ করেন।’

আরও পড়ুন: হাসপাতাল থেকে ছাড়া পেলেন ফুটবল সম্রাট পেলে

চ্যাট শো কান্ডে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের কাছে প্রাথমিকভাবে দোষ স্বীকার করে পান্ডিয়া লিখেছিলেন, ‘চ্যাট-শোয়ে আমার মন্তব্য একশ্রেণীর দর্শকদের আঘাত করায় আমি ক্ষমাপ্রার্থী। তবে সমাজের কোনও বিশেষ শ্রেণীকে বা জাতিকে আঘাত করা আমার উদ্দেশ্য ছিল না।’

একইভাবে ঘটনায় লজ্জিত রাহুল জানিয়েছিলেন, ‘আমি নিশ্চিত করছি, একজন ক্রিকেটার হিসেবে জনসমক্ষে দেশ বা বিসিসিআইয়ের হয়ে প্রতিনিধিত্ব করার সময়ে ভবিষ্যতে আরও সতর্ক থাকবো।