জলন্ধর: করোনার গ্রাসে পৃথিবী৷ অতিমহামারীর এখনও ঘরবন্দি করে রেখেছে বিশ্বের অনেক দেশকে৷ মহামারীর হাত থেকে বিশ্বকে বাঁচাতে দিন-রাত লড়াই করে চলেছেন গবেষকরা৷ তবেও এখনও করোনা ভ্যাকসিন আস্বস্ত করতে পারেনি বিশ্বকে৷ কারণ এখনও কোনও দেশে সার্বিকভাবে ভ্যাকসিনেসন চালু হয়নি৷ এই অবস্থায় ভারতে কোভিড ভ্যাকসিনের প্রয়োজনীয়তা নিয়ে প্রশ্ন করে বিতর্কে জড়ালেন টিম ইন্ডিয়ার প্রাক্তন অফ-স্পিনার হরভজন সিং৷

ভারতে কোভিড ভ্যাকসিনের সত্যিই কি দরকার আছে? মজার ভঙ্গিতে এমনই টুইট করেন ভাজ্জি। সংবেদনশীল বিষয়ে বিতর্কিত এই টুইট করে সোশ্যাল মিডিয়ায় রীতিমতো ট্রোলড হলেন ভারতীয় দলের প্রাক্তন এই ক্রিকেটার। বিশ্বের অনান্য দেশের মতো ভারতও করোনা ভ্যাকসিন তৈরিতে তৎপর৷ এই অবস্থায় ভাজ্জির এই টুইট ভালোভাবে নেয়নি অনেকেই৷

টুইটারে হরভজন লেখেন, ভ্যাকসিন ছাড়াই ভারতে করোনাভাইরাসে সুস্থতার হার ৯৩.৬ শতাংশ। সেখানে ভ্যাকসিনের কার্যকারিতা ফাইজার ও বায়োটেকে ৯৪ শতাংশ৷ আর মডারেনায় ৯৪.৫ শতাংশ৷ অক্সফোর্ড ভ্যাকসিনের ক্ষেত্রে সেটা আবার ৯০ শতাংশ। এই সব পরিসংখ্যান তুলে ধরে প্রাক্তন এই ভারতীয় ক্রিকেটারের প্রশ্ন, ‘তা হলে কি সত্যিই ভারতে ভ্যাকসিনের প্রয়োজনীয়তা রয়েছে’? এর সঙ্গে চিন্তাশীল ইমোজি পোস্ট করেন ভাজ্জি৷

PFIZER AND BIOTECH Vaccine:
Accuracy *94%
Moderna Vaccine: Accuracy *94.5%
Oxford Vaccine: Accuracy *90%
Indian Recovery rate (Without Vaccine): 93.6%
Do we seriously need vaccine 🤔🤔

— Harbhajan Turbanator (@harbhajan_singh) December 3, 2020

কিন্তু হরভজনের এই পোস্ট ভালো চোখে দেখেননি অনেকেই৷ একজন ভাজ্জির টুইটের উত্তর দিয়ে লেখেন, ‘বোকার মতো এমন পোস্ট করবেন না। প্লেন ক্র্যাশ হওয়ার ৫ শতাংশও সম্ভাবনা থাকে, তাহলে কি আপনি সেই বিমানে উঠবেন? দেশের ৯৩.৬ শতাংশ মানুষ সেরে উঠছেন মানে, ৬.৪ শতাংশ মানুষের অবস্থা সংকটজনক বা মৃত। আমাদের দেশের জনসংখ্যার ৬.৪ শতাংশ মানে কত, তা অঙ্ক করে বের করুন। টুইট করার আগে বিজ্ঞান নিয়ে পড়াশোনা করুন।’

এখনও পর্যন্ত করোনাভাইরাসে সারা দেশে প্রায় ১ লক্ষ ৪০ হাজার মানুষ প্রাণ হারিয়েছেন৷ সুতরাং তাঁদের জীবনের কী কোনও দাম নেই৷ কেউ কেউ আবার এই দাম নেই৷ অন্য একজন লেখেন, ‘যদি ভারতীয় দলের প্রত্যেকেই ম্যান অফ দ্য ম্যাচের পুরস্কার পায়, তাহলে ভারতের প্রত্যেক ম্যাচ জেতা উচিত। কিন্তু তেমনটা তো হয় না৷ পরিসংখ্যান বিপথে চালিত করতে পারে।’ আগামী সপ্তাহ থেকে রাশিয়ায় মাস ভ্যাকসিনের কথা ঘোষণা করেছেন প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন৷ কিছুদিনের মধ্যে ব্রিটেনেও মাস ভ্যাকসিনের কথা বলা হচ্ছে৷ যদিও ভারতে তা কবে হবে, এখনও তার নিশ্চয়তা দেয়নি মোদী সরকার৷

লাল-নীল-গেরুয়া...! 'রঙ' ছাড়া সংবাদ খুঁজে পাওয়া কঠিন। কোন খবরটা 'খাচ্ছে'? সেটাই কি শেষ কথা? নাকি আসল সত্যিটার নাম 'সংবাদ'! 'ব্রেকিং' আর প্রাইম টাইমের পিছনে দৌড়তে গিয়ে দেওয়ালে পিঠ ঠেকেছে সত্যিকারের সাংবাদিকতার। অর্থ আর চোখ রাঙানিতে হাত বাঁধা সাংবাদিকদের। কিন্তু, গণতন্ত্রের চতুর্থ স্তম্ভে 'রঙ' লাগানোয় বিশ্বাসী নই আমরা। আর মৃত্যুশয্যা থেকে ফিরিয়ে আনতে পারেন আপনারাই। সোশ্যালের ওয়াল জুড়ে বিনামূল্যে পাওয়া খবরে 'ফেক' তকমা জুড়ে যাচ্ছে না তো? আসলে পৃথিবীতে কোনও কিছুই 'ফ্রি' নয়। তাই, আপনার দেওয়া একটি টাকাও অক্সিজেন জোগাতে পারে। স্বতন্ত্র সাংবাদিকতার স্বার্থে আপনার স্বল্প অনুদানও মূল্যবান। পাশে থাকুন।.

কোনগুলো শিশু নির্যাতন এবং কিভাবে এর বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়ানো যায়। জানাচ্ছেন শিশু অধিকার বিশেষজ্ঞ সত্য গোপাল দে।