দুবাই: ইউএফও নিয়ে কৌতূহল কমবেশি সকলেরই রয়েছে৷ আর সেই ইউএফও নিয়ে খবর মাঝেমধ্যেই জায়গা করে নেয় সংবাদ মাধ্যমে৷ যেমন এবার দুবাইয়ের এমনই একটি খবর উঠে এল ফোকাসে৷

বিষয়টি সংবাদ মাধ্যমে উঠে আসে ৪০ বছর বয়সী হোমমেকার পৃথী ঢকন রিজেশের অভিজ্ঞতার কথা থেকে৷ তিনি জানান, তিনি হঠাৎই দেখতে পান আকাশে কিছু একটা জ্বলজ্বল করছে৷ তবে তা বিমানও নয়, চাঁদও নয়, ফানুশও নয়৷ সম্পূর্ণ অন্য কিছু৷ কিন্তু কি?

রিজেশের মতোই আরও অনেকে এই দৃশ্যের সাক্ষী বলে দাবি করেন৷ গালফ্ নিউজ-কে রিজেশ জানান, ইউএফও-র মতোই একটা বৃহদাকার রিং স্পিডে আকাশের একপ্রাপন্ত থেকে অন্যপ্রান্তে চলে গেল৷ এর ঠিক তিনদিন আগে রিজেশ বন্ধুবান্ধবরাও আবু ধাবিতে এমনই কিছু দেখতে পেয়েছিল বলে রীতেশ জানান৷

পড়ুন আরও- এই অভিনেত্রীর হট-সেক্সি ছবিগুলি দেখার পর কী বলবেন আপনি?

ওই সংবাদ মাধ্যমকে পাঠানো ভিডিওতে নাকি স্পষ্ট দেখা যায়, একটা আলো খুব দ্রুত গতিতে একপ্রান্ত থেকে অন্যপ্রান্তে চলে যাচ্ছে৷ এতে আবার ২২ ডিগ্রীর হ্যালো রয়েছে৷ তবে সেটি ঠিক কি তাতে কিন্তু ধোঁয়াশা রয়েছে৷

এদিকে গত মাস খানেক আগে একটি ছবি ঘিরে রাতভর আকাশে ইউএফওর ঘোরাফেরা নিয়ে উত্তেজনা ছড়ায়। উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে সোশ্যাল মিডিয়াতেও। ট্যুইটার-ফেসবুকে হু হু করে ছড়িয়ে পড়ে সেই ছবি। যদিও সবাইকে হতাশ করলে পেন্টাগন জানায়, ওটা আসলে মিসাইল টেস্ট।

পড়ুন আরও- জওয়ানদের স্ত্রীদের ওপর অত্যাচার চলে, চাঞ্চল্যকর অভিযোগের ভিডিও ভাইরাল

ক্যালিফোর্নিয়া থেকে অ্যারিজোনার আকাশ জুড়ে চলেছে এক অদ্ভুত আলোর আনাগোনা। পেন্টাগনের তরফ থেকে মুখপাত্র জানান, মার্কিন নৌবাহিনীর স্ট্র্যাটেজিক সিস্টেমস প্রোগ্রামস ট্রাইডেন্টের মিসাইল পরীক্ষা করা হচ্ছিল এদিন। দক্ষিণ ক্যালিফোর্নিয়ার সমুদ্র থেকে উৎক্ষেপণ করা হয় এই মিসাইল। সিস্টেমের ক্ষমতা পরীক্ষা করতে মাঝে-মধ্যেই এই টেস্ট করতে হয়। আর এই ধরণের পরীক্ষার আগে কোনও ঘোষণা করা হয় না বলেও জানানো হয়েছে।

স্বাভাবিকভাবেই সাধারণ মানুষ হতভম্ব। অনেকেই ভাবলেন বুঝি এল ভিনগ্রহের যান। ট্যুইটারে কিংবা ফেসবুকে অন্যান্য বন্ধুদের অভিজ্ঞতার কথা জানতেও চাইলেন অনেকেই।