স্টুটগার্ট: এ যাবৎ নিজের টেনিস কেরিয়ারের সব থেকে বড় জয় পেলেন ভারতের ডেভিস কাপ দলের অন্যতম সদস্য প্রজনেশ গুনেশ্বরণ৷ ক’দিন আগে লাকি লুজার হিসাবে ফরাসি ওপেনের মূলপর্বে খেলার ছাড়পত্র পেলেও নিজের ভুলে রোলাঁ গারোয় গ্র্যান্ড স্ল্যাম অভিষেকের সুযোগ হাতছাড়া করেন ভারতীয় তারকা৷ সেই ক্ষোভ অবশ্য মিটিয়ে নিলেন এটিপি স্টুটগার্ট ওপেনে৷ মার্সিডিজ কাপের প্রথম রাউন্ডে কোয়ালিফায়ার প্রজনেশ হারালেন বিশ্বের ২৩ নম্বর তারকা ডেনিশ শাপোভালোভকে৷

১৯ বছর বয়সি কানাডিয়ান তরুণ এটিপি সার্কিটে জায়ান্ট কিলার হিসাবে নিজের পরিচিতি তৈরি করেছেন ইতিমধ্যেই৷ গত বছর রজার্স কাপে বিশ্বর এক নম্বর তারকা রাফায়েল নাদালকে পরাজিত করেছিলেন তিনি৷ সেই থেকে ধারাবাহিকভাবে বেশ কিছু বড় ম্যাচ জেতার পুরস্কার স্বরূপ এটিপি ব়্যাংকিংয়ে প্রভূত উন্নতি করেছেন৷ স্টুটগার্টে ষষ্ঠ বাছাই হিসাবে কোর্টে নামলেও প্রজনেশের কাছে মাথা নোয়াতে হয় শাপোভালোভকে৷

দু’দিন আগেই বিশ্বব়্যাংকিংয়ে কেরিয়ারের সেরা ১৬৯ নম্বরে পৌঁছনো প্রজনেশ কানাডিয়ান টিন এজারের বিরুদ্ধে টাই ব্রেকারে প্রথম সেট ৭-৬ (৮/৬) গেমে জিতে নেন৷ তবে দ্বিতীয় সেটে ২-৬ গেমে আত্মসমর্পণ করতে হয় তাঁকে৷ নির্নায়ক সেট ৬-৩ গেমে জিতে ৭ লক্ষ ২৯ হাজার ৩৪০ ইউরো পুরস্কার মূল্যের ঘাস কোর্ট ইভেন্টের দ্বিতীয় রাউন্ডে জায়গা করে নেন গুনেশ্বরণ৷

দ্বিতীয় রাউন্ডে বিশ্বর ৭৫ নম্বর আর্জেন্তাইন তারকা গুইদো পেল্লার বাধা টপকাতে পারলে কোয়ার্টার ফাইনালে রজার ফেডেরারে বিরুদ্ধে ঐতিহাসিক ম্যাচ খেলার সুযোগ পেয়ে যাবেন প্রজনেশ৷ প্রথম রাউন্ডে বাই পাওয়া শীর্ষ বাছাই ফেডেরার দ্বিতীয় রাউন্ডে জার্মানির মিসচা জেরেভকে ৩-৬, ৬-৪, ৬-২ সেটে পরাজিত করে কোয়ার্টার ফাইনালের টিকিট নিশ্চিত করেছেন৷ ক্লে কোর্ট মরশুম থেকে সরে দাঁড়ানো রজার জয় দিয়ে কোর্টে ফিরলেও একটি সেট খোয়ানোয় আশঙ্কায় থাকবেন নিশ্চিত৷