নয়াদিল্লি: কয়েক ঘণ্টা পর শপথ দেবেন দেশের প্রধানমন্ত্রী। প্রায় ৮০০০ অতিথি উপস্থিত থাকবেন এই শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানে। রাষ্ট্রপতি ভবনের ইতিহাসে এটাই হবে সবথেকে বড় অনুষ্ঠান।

অতিথিদের পরিবেশন করা হবে ‘হাই-টি’ আর নৈশভোজের আতিথ্য করবেন স্বয়ং রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ। বিমস্টেকের দেশগুলির প্রতিনধিদের আমন্ত্রণ করা হয়েছে এই অনুষ্ঠানে।

দেখে নেওয়া যাক কারা থাকবেন বৃহস্পতিবার সন্ধের এই অনুষ্ঠানে:

বিদেশি নেতা: BIMSTEC দেশগুলিরে নেতাদের আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে। উপস্থিত থাকবেন বাংলাদেশের প্রেসিডেন্ট আব্দুল হামিদ, শ্রীলঙ্কার প্রেসিডেন্ট মৈত্রিপালা সিরিসেনা, মায়ানমারের প্রেসিডেন্ট ইউ উইন ময়িন্ত, নেপালের প্রধানমন্ত্রী কে পি শর্মা ওলি ও ভুটানের প্রধানমন্ত্রী লোটে শেরিং।

থাইল্যান্ড থেকে থাকবেন বিশেষ প্রতিনিধি গ্রিসাদা বোনার্ক। বিমস্টেক দেশগধলি ছাড়া থাকছে মরিশাস ও কিরগিজস্তান। মরিশাসের প্রধানমন্ত্রী প্রভিন্দ কুমার জগনথ ও কিরগিজস্তানের প্রেসিডেন্ট সূরনুবে জিনবেকভ থাকবেন। এদের মধ্যে আনেকের সঙ্গে শুক্রবার বৈঠক করবেন মোদী।

ভারতীয় নেতা: দেশের সব রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীদের আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে। পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়, ওডিশার মুখ্যমন্ত্রী নবীন পট্টনায়ক, ছত্তিসগড়ের মুখ্যমন্ত্রী ভূপেশ সিং ভাগেল, কেরলের মুখ্যমন্ত্রী পিনারাই বিজয়ন থাকতে পারবেন না বলে জানিয়েছেন।

অন্ধ্রের নয়া মুখ্যমন্ত্রী জগন মোহন রেড্ডি, দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল, কর্ণাটকের মুখ্যমন্ত্রী কুমারস্বামী সহ অন্যান্য মুখ্যমন্ত্রীরা এদিনের অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকবেন বলেই আশা করা হচ্ছে।

বিরোধী দল থেকে রাহুল গান্ধী, সোনিয়া গান্ধী উপস্থিত থাকার কথা জানিয়েছেন। থাকবেন প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিং। এছাড়া প্রাক্তন রাষ্ট্রপতিরাও থাকবেন এই অনুষ্ঠানে।

বাণিজ্য জগৎ: বহু শিল্পপতি থাকবেন এদিনের অনুষ্ঠানে। থাকবেন মুকেশ অম্বানি, গৌতম আদানি, রতন টাটা। এছাড়া অজয় পীরামল, জন চেম্বারস, বিল গেটসকেও আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে মোদীর শপথে।

ক্রীড়া জগৎ: উপস্থিত থাকবেন পি টি উষা, রাহুল দ্রাবিড়, অনিল কুম্বলে, জাভাগল শ্রীনাথ, হরভজন সিং, সাইনা নেহওয়াল, গোপীচাঁদ, দিপা কর্মকার প্রমুখ।

বিনোদন জগৎ: থাকবেন সুপারস্টার রজনীকান্ত, কমল হাসান। বলিউড থেকে থাকবেন শাহরুখ খান, সঞ্জয় লীলা বনশালি, করন জোহর, কঙ্গনা রানাউত সহ অনেকে।

এছাড়া, বিভিন্ন জায়গায় মৃত বিজেপি কর্মীদের পরিবারকে আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে। পশ্চিমবঙ্গ থেকে এমন ৫০ জন বজেপি কর্মীর পরিবারকে আমন্ত্রন জানানো হয়েছে।