বালুরঘাটঃ দীর্ঘ ১৫ বছর পর বালুরঘাট স্টেশনে চালু হল জিআরপি থানা। মঙ্গলবার দুপুরে স্টেশন চত্বরে ফিতে কেটে এই থানার দ্বারোদঘাটন করেন জিআরপি’র মালিদা রেঞ্জের ডিএসপি রিপন বল।

স্বাধীনতার দীর্ঘ ৫৭ বছর পর দেশের রেল মানচিত্রে স্থান পেয়েছিল দক্ষিণ দিনাজপুর জেলা। তৎকালীন রেলমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায়ের উদ্যোগে একলাখী-বালুরঘাট রেল প্রকল্প বাস্তবায়িত হয়েছিল। মমতা বন্দোপাধ্যায়ের প্রচেষ্ঠাতেই বালুরঘাট থেকে একাধিক ট্রেন ও হিলি পর্যন্ত রেলপথ সম্প্রসারণ প্রকল্পের সূচনা হয়েছিল। ট্রেন যোগাযোগ শুরু হলেও ছিল না কোন জিআরপি’র পুলিশ পরিষেবা।

ফলে রেলযাত্রায় চুরি ছিন্তাই বা বিপদে পড়ার ঘটনায় যাত্রী সাধারণকে খুবই অসহায় অবস্থার সামনাসামনি করতে হত। ২০০৮ সালে রাজ্য সরকার বালুরঘাট স্টেশনে নিয়োগের পর সেখানে জিআরপি পোস্ট স্থাপন করে। অবশেষে সেই ঘোষনার দীর্ঘ ১১ বছর পর মঙ্গলবার জিআরপি থানার সূচনা হওয়ায় খুশি রেলযাত্রী থেকে সাধারণ মানুষ। জিআরপি’র ডিএসপি ছাড়াও উপস্থিত ছিলেন মালদা জিআরপির আইসি ভাস্কর প্রধান-সহ অনেকেই।

ডিএসপি রিপন বল জানিয়েছেন যে বালুরঘাট জিআরপি থানায় গোবিন্দ মালীকে ওসি হিসেবে নিয়োগ করা হয়েছে। অন্যান্যদের মধ্যে রয়েছেন দুই জন এসআই ছয় জন এএসআই ও বারো জন কনস্টেবল। বালুরঘাট স্টেশনে জিআরপি থানা চালু হওয়ায় উপকৃত হবেন রেল যাত্রীরা।