কলকাতা : বৃহস্পতিবার কলকাতায় ২২ ক্যারাট সোনার ১ গ্রামের দাম ৪,৬৩৪ টাকা , ৮ গ্রামের দাম ৩৭,০৭২ টাকা , ১০ গ্রামের দাম ৪৬,৩৪০ টাকা , ১০০ গ্রামের দাম ৪,৬৩,৪০০ টাকা৷ প্রতি গ্রামে দাম বেড়েছে ১১,৮৮, ১১০,১১১০ টাকা।

বৃহস্পতিবার কলকাতায় ২৪ ক্যারাট সোনার ১ গ্রামের দাম ৪,৯১৩ টাকা , ৮ গ্রামের দাম ৩৯,৩০৪ টাকা, ১০ গ্রামের দাম ৪৯,১৩০ টাকা , ১০০ গ্রামের দাম ৪,৯১,৩০০ টাকা ৷ প্রতি গ্রামে দাম বেড়েছে ১১,৮৮, ১১০,১১১০ টাকা।

বুধবার এমসিএক্সে সোনার দাম ০.২৬ শতাংশ বেড়েছিল। রুপোর দাম ০.৫৬ শতাংশ বেড়েছিল। ওইদিন সারা ভারতের বাজারেই সোনার দাম বেশি ছিল।

বুধবার দিল্লিতে ১০০ গ্রাম সোনার দাম ছিল ৪৫,৭৯০ টাকা ২২ ক্যারেটে। দিল্লিতে ১০০ গ্রাম সোনার দাম ২৪ ক্যারেটে ৪৯,৯৯০ টাকা। মুম্বইতে ১০০ গ্রাম সোনার দাম ৪৪,৫৮০ টাকা, ২৪ ক্যারেটে ১০০ গ্রাম সোনার দাম ৪৫,৫৮০ টাকা, কলকাতায় ২২ ক্যারেটে ১০০ গ্রাম সোনার দাম ৪৬,৫৩০ টাকা হয়েছে। ২৪ ক্যারেটে ১০০ গ্রাম সোনার দাম ৪৯,৩২০ টাকা। চেন্নাইতে ২২ ক্যারেটে ১০০ গ্রাম সোনার দাম ৪৪,৩২০ টাকা, ২৪ ক্যারেটে ১০০ গ্রাম সোনার দাম ৪৮,৩৫০ টাকা।

২০২০ সালের অগাস্টে সোনার দাম রেকর্ড স্তরে পৌঁছে গিয়েছিল ৷ প্রতি ১০ গ্রামে সোনার দাম পৌঁছে গিয়েছিল ৫৬,২০০ টাকা ৷ বর্তমানে সোনার দাম সেই হিসেব অনুযায়ী রেকর্ড দাম থেকে সোনার দাম প্রায় ১০,০০০ টাকা কমে গিয়েছে ৷

প্রসঙ্গত, ৩০ এপ্রিল দিল্লিতে ২২ ক্যারেটে ৪৫,৩৭০ টাকা, ২৪ ক্যারেটে দাম ৪৯,৫৭০ টাকা।মুম্বইতে ২২ ক্যারেটে ১০০ গ্রাম সোনার দাম ছিল ৪৪,১৭০ টাকা, ২৪ ক্যারেটে দাম ১০০ গ্রাম সোনার দাম ছিল ৪৫,১৭০ টাকা।কলকাতার ১০০ গ্রাম সোনার দাম ছিল ২২ ক্যারেটে ছিল আজ ৪৬,১২০ টাকা। ২৪ ক্যারেটে এর দাম ১০০ গ্রামে ছিল ৪৮,৮২০ টাকা। চেন্নাইতে ১০০ গ্রাম সোনার দাম ২২ ক্যারেটে ছিল চেন্নাইতে ৪৪,০৫০ টাকা হয়েছে। ২৪ ক্যারেটে সোনার দাম ৪৮,০৫০ টাকা ছিল।।২৯এপ্রিল কলকাতায় ২২ ক্যারেটে ১০০ গ্রাম সোনার দাম ৪৬,৪৩০ টাকা । ২৪ ক্যারেটে ১০০ গ্রাম সোনার দাম ছিল ৪৯,৮৬০ টাকা । সেই দাম চলতি সপ্তাহে অনেকটাই বেড়েছে।

১০ গ্রামে সোনার দাম ৭৪ টাকা বৃদ্ধি পেয়েছিল। ১০ গ্রামে সোনার দাম ৪৬,৯৪৫ টাকা। ১ কেজি রুপোর দাম ৬৯,৮৮৪ টাকা। ১ কেজি রুপোর দাম ০.৩৪ শতাংশ বেড়েছে। সেই অনুযায়ী ১ কেজি রুপোর দাম ২৩৫ টাকা বেড়ে গিয়েছিল। রুপোর দাম ১ কেজিতে প্রায় ৭০ হাজার টাকা বেড়েছিল।

লাল-নীল-গেরুয়া...! 'রঙ' ছাড়া সংবাদ খুঁজে পাওয়া কঠিন। কোন খবরটা 'খাচ্ছে'? সেটাই কি শেষ কথা? নাকি আসল সত্যিটার নাম 'সংবাদ'! 'ব্রেকিং' আর প্রাইম টাইমের পিছনে দৌড়তে গিয়ে দেওয়ালে পিঠ ঠেকেছে সত্যিকারের সাংবাদিকতার। অর্থ আর চোখ রাঙানিতে হাত বাঁধা সাংবাদিকদের। কিন্তু, গণতন্ত্রের চতুর্থ স্তম্ভে 'রঙ' লাগানোয় বিশ্বাসী নই আমরা। আর মৃত্যুশয্যা থেকে ফিরিয়ে আনতে পারেন আপনারাই। সোশ্যালের ওয়াল জুড়ে বিনামূল্যে পাওয়া খবরে 'ফেক' তকমা জুড়ে যাচ্ছে না তো? আসলে পৃথিবীতে কোনও কিছুই 'ফ্রি' নয়। তাই, আপনার দেওয়া একটি টাকাও অক্সিজেন জোগাতে পারে। স্বতন্ত্র সাংবাদিকতার স্বার্থে আপনার স্বল্প অনুদানও মূল্যবান। পাশে থাকুন।.