ওয়াশিংটন: সাহারা মরুভূমি থেকে ধেয়ে আসছে একটি ভয়াবহ ধূলোর ঝড়। চলতি সপ্তাহের শেষেই সেটি আছড়ে পড়তে চলেছে আমেরিকার দক্ষিণ পূর্ব এলাকায়। আবহাওয়াবিদরা জানাচ্ছেন, ধুলোর ঝড়ের ফলে করোনাভাইরাস প্রভাবিত রাজ্যগুলিতে স্বাস্থ্য উদ্বেগ আরও বাড়বে।

আবহাওয়াবিদরা জানাচ্ছেন, পশ্চিমে টেক্সাসে এবং উত্তর আরকানসাস হয়ে উত্তর ক্যারোলাইনা অঞ্চলে পৌঁছানোর এই ধুলোর মেঘ আফ্রিকা থেকে ৫০০০ মাইল রাস্তা পাড়ি দিয়েছে।

এক মার্কিন আবহাওয়াবিদ জানাচ্ছেন, প্রতি বছরি অবশ্য এমন ধূলোর প্রকোপ দেখা যায়। কিন্তু এবছর মাত্রা আরও বেশি। জানানো হয়েছে, এবছরের ধূলোর যে ঝড় আসতে চলেছে তা গত ৫ দশকের মধ্যে সবচেয়ে ঘন।

টেক্সাস, ফ্লোরিডা এবং অন্যান্য রাজ্যে যেখানে কোভিড -১৯ এর সংখ্যা সম্প্রতি বেড়েছে সেই সব এলাকাগুলিতে আগামী সপ্তাহের মাঝামাঝি পর্যন্ত থাকতে পারে ধূলোর ঝড়ের সম্ভাবনা।

এই ঝড় নিয়ে যথেষ্ট চিন্তায় রয়েছেন মার্কিন বিশেষজ্ঞরা। কারণ, একদিকে করোনা প্রকোপে ধুঁকতে থাকা রাজ্য। অন্যদিকে বায়ু দূষণ ফলে পরিস্থিতি কোন দিকে যায়, তা ভাবাচ্ছে অনেককেই।

যারা কার্ডিওভাসকুলার এবং শ্বাসকষ্টজনিত অসুস্থতার ঝুঁকিতে বা ভোগেন তাদের জন্য বায়ু দূষণ বিশেষত ক্ষতিকারক হতে পারে। হার্ট এবং ফুসফুসের সমস্যাগুলি গুরুতর COVID-19 এর ঝুঁকি বাড়ায়, ফলে চিন্তা আরও বাড়ছে।

পপ্রশ্ন অনেক: একাদশ পর্ব

লকডাউনে গৃহবন্দি শিশুরা। অভিভাবকদের জন্য টিপস দিচ্ছেন মনোরোগ বিশেষজ্ঞ।