নয়াদিল্লি: ‘স্বাধীন ভারতের প্রথম সন্ত্রাসবাদী একজন হিন্দু৷’ কমল হাসানের মন্তব্যে তৈরি হয় বিতর্ক৷ প্রতিবাদে সরব হয় গেরুয়া শিবির৷ সেই বিতর্কের মাঝেই দক্ষিণী অভিনেতা ও মাক্কাল নিধি মিয়ামের প্রধানের পাশেই দাঁড়ালেন এআইএমআইএম নেতা আসাদুদ্দিন ওয়াইসি৷

এআইএমআইএম প্রধানের মতে, “গান্ধীর হত্যাকারীকে জঙ্গি ছাড়া আর কি বা বলা যায়?” বিজেপিকে কটাক্ষ করে তিনি বলেন, ‘‘যাঁরা জাতির জনকের হত্যা ভুলে গিয়েছেন, তাঁরা তাঁকে শ্রদ্ধা না। যারা মহাত্মা গান্ধীর হত্যার সঙ্গে যুক্ত ছিল, তারা সকলেই জঙ্গি৷’’

আরও পড়ুন: মরে গেলেও মোদীর বাবা-মাকে অসম্মান করব না: রাহুল

রবিবার তামিলনাড়ুর আভারুকুরিচি বিধানসভা উপনির্বাচনের প্রচার করেন কমল হাসান৷ সেখানেই তিনি বিতর্কিত মন্তব্যটি করে বসেন৷ বলেন, ‘‘স্বাধীন ভারতের প্রথম সন্ত্রাসবাদী একজন হিন্দু৷ তার নাম হল নাথুরাম গডসে৷’’ পরে সভায় তিনি বলেন, ‘‘এখানে মুসলিম ভোট বেশি৷ তাই মনে হতেই পারে আমি ভোটের জন্য একথা বলছি৷ কিন্তু একেবারেই তা নয়৷ আমি এটা মহত্মা গান্ধীর মূর্তির সামনে বলছি।’’ দাবি করেন অভিনেতা থেকে নেতা হওয়া কমল হাসান৷

আরও পড়ুন: গডসে মন্তব্য: কমল হাসানের বিরুদ্ধে ফৌজদারী ধারায় অভিযোগ দায়ের

এদিকে ‘স্বাধীন ভারতের প্রথম হিন্দু সন্ত্রাসবাদী গডসে’ মন্তব্য করে বিপাকে অভিনেতা কমল হাসান৷ হিন্দু ভাবাবেগে আঘাত করেছেন এই অভিযোগ উঠেছে তাঁর বিরুদ্ধে৷ তাই মঙ্গলবার দিল্লির পাতিয়ালা হাউস কোর্টে মাক্কাল নিধি মইয়াম দলের নেতার বিরুদ্ধে ফৌজদারি ধারায় অভিযোগ দায়ের করা হয়৷

দক্ষিণী সুপারস্টারের মন্তব্যের বিরোধীতা করেছেন অভিনেতা বিবেক ওবেরয়ও৷ জানান, সিনেমা ও সন্ত্রাসের কোনও ধর্ম হয় না৷ ট্যুইটে বিবেক লেখেন, ‘‘আপনি অনেক উঁচু মানের শিল্পী৷ শিল্প ও কলার যেমন ধর্ম হয় না তেমন সন্ত্রাসেরও হয় না৷ আপনি বলেছেন গোডসে জঙ্গি ছিল৷ তাহলে কেন হিন্দু শব্দের প্রয়োগ করলেন? আপনি মুসলিম অধ্যুষিত এলাকায় ভোট চাইতে গিয়েছেন বলে এমনটা বলেননি তো?’’