স্টাফ রিপোর্টার, মালদহ : বেশ কিছুদিন আগে কাশ্মীরে কাজে গিয়ে জঙ্গিদের গুলিতে নিহত হয়েছে বাংলার পাঁচ শ্রমিক। সেদিনের সেই ঘটনার স্মৃতি এখনও বাংলার মানুষের মনে দগদগে। স্বজন হারানোর ব্যথা না কমতেই তার মধ্যেই ভিন রাজ্যে কাজে গিয়ে শ্রমিক মৃত্যুর ঘটনায় সকাল থেকে শোকের ছায়া নেমেছে মালদহ জেলা জুড়ে।

একদিকে স্বজন হারানোর ব্যথা অন্যদিকে ভিনরাজ্যে রুটি রুজির টানে গিয়ে মৃত্যুর ঘটনা আতঙ্কের পরিবেশ সৃষ্টি করছে এই জেলার বহু গরীব পরিবারের সাধারণ মানুষের মনে। জানা গিয়েছে, ভিনরাজ্যে কাজে গিয়ে বহুতল থেকে পড়ে গিয়ে ফের মালদহ জেলার এক শ্রমিকের মৃত্যু হয়েছে। ভিনরাজ্যে কাজে গিয়ে ফের মৃত্যুর খবর গ্রামে চাউর হতেই এলাকা জুড়ে শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

মৃত ওই শ্রমিকের নাম শেখ তাজুল(৪২)। বাড়ি মালদহ জেলার রতুয়া-১ ব্লকের ভাদো এলাকায়। গত কুড়িদিন আগে তিনি মুম্বইয়ে গিয়েছিলেন ঠিকাশ্রমিকের কাজ করতে। সেখানে সে পুরোনো বিল্ডিং ভাঙার কাজে নিযুক্ত ছিল।

সূত্রের খবর, অন্যান্য দিনের মতো গত মঙ্গলবারও কাজে বেরিয়ে ছিল শেখ তাজুল। মুম্বইয়ের একটি চারতলা বিল্ডিং’এ কর্মরত অবস্থায় ওই বিল্ডিং থেকে পরে যায় সে। তড়িঘড়ি করে তাকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় নিয়ে যাওয়া হয় স্থানীয় একটি বেসরকারি নার্সিংহোমে। সেখানে নিয়ে যাওয়া হলে ওখানকার কর্তব্যরত চিকিৎসকরা তাঁকে মৃত বলে ঘোষণা করে। মঙ্গলবার সন্ধ্যায় মৃত্যু হলেও সব ঝামেলা মিটিয়ে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় শেখ তাজুলের কফিনবন্দি মৃতদেহ এসে পৌঁছায় তার মালদহের বাড়িতে। কফিন বন্দি দেহ গ্রামে পৌঁছাতেই এলাকায় শোকের ছায়া নেমে আসে।

মৃত শেখ তাজুলের এক আত্মীয় জানান, তাজুলের পরিবারে রয়েছে স্ত্রী লাইলি বিবি সহ এক মেয়ে ও চার ছেলে। খুব অভাব অনটনে চলছিল তাঁদের সংসার। পেটের তাগিদেই মাঝেমধ্যে যেতে ভিন রাজ্যে কাজ করতে। সেইমত কুড়িদিন আগে রুজির খোঁজে মুম্বই গিয়েছিল সে ঠিকাদারের কাজ করতে। কিন্তু কাজে গিয়ে এইভাবে তাঁর মৃত্যু হবে তা কল্পনাও করতে পারেননি শেখ তাজুলের স্ত্রী লাইলি বিবি। মঙ্গলবার সন্ধ্যায় স্বামীর মৃত্যুর খবর আসতেই মাথায় আকাশ ভেঙে পড়ে ওই পরিবারের। জানা গিয়েছে তাঁদের সংসারে রোজগারের বলতে একমাত্র শেখ তাজুলই ছিল তাঁদের অবলম্বন।

এদিকে,ঘটনার খবর শুনে মৃত শেখ তাজুলের বাড়িতে এসে হাজির হয় স্থানীয় জেলা পরিষদের সদস্য হুমায়ুন কবির। মৃতের পরিবারের সঙ্গে কথা বলে তিনি তাঁদেরকে সব রকম সরকারি অনুদানের সহযোগিতা করার আশ্বাস দেন বলে জানা গিয়েছে।