নয়াদিল্লি: করোনা সংক্রমণ রুখতে আগেই কড়া পদক্ষেপ গ্রহন করেছে ভারত সরকার। নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে বিদেশ ভ্রমনের উপরে। আগেই এয়ার ইন্ডিয়া,ইন্ডিগো সহ বেশ কয়েকটি এয়ারলাইন্স আন্তর্জাতিক পরিষেবা বন্ধ রেখেছে। সেই পথেই এবারে পা রাখল গো এয়ার। ১৫ এপ্রিল পর্যন্ত তারা তাঁদের আন্তর্জাতিক পরিষেবা বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। এছাড়াও এপ্রিলের মাঝামাঝি পর্যন্ত কর্মীদের বিনা বেতনে ছুটিতে পাঠিয়েছে।

এই সিদ্ধান্তের জেরে অসুবিধার মধ্যে বিমান কর্মীরা। বুধবার এয়ার ইন্ডিয়ার লন্ডন ভিয়েনা সহ বেশ কয়েকটি দেশের বিমান বাতিল করা হয়েছে। এই পরিষেবা আগামী ৩১ জানুয়ারি পর্যন্ত বন্ধ থাকবে বলে জানা গিয়েছে।

চিনের ইউহান থেকে ছড়ানো এই ভাইরাসে রীতিমত মহামারীর আকার ধারন করেছে বিশ্বে। এই ভাইরাসের গ্রাসে বিশ্বের প্রায় ১৬০ টি দেশ। আক্রান্তের সংখ্যা ২ লক্ষের বেশী। মারা গিয়েছেন ৮ হাজার জনের মত। তবে আপাত ভাবে ভারতে পরিস্থিতি কিছুটা হলেও নিয়ন্ত্রিত। ইতিমধ্যে জমায়েতে নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে প্রশাসন। দেশে এই মুহূর্তে আক্রান্তের সংখ্যা ১৬৯, মৃত ৩।

গো এয়ার প্রথম বিমান সংস্থা যারা কর্মীদের এভাবে ছুটিতে পাঠাচ্ছে। যদিও তাঁদের তরফে জানানো হয়েছে কর্মীদের উপর চাপ কমাতে পদক্ষেপ নেওয়া হবে। বাকিরা কি করছে সেদিকেও নজর রয়েছে বলে জানিয়েছে বিমান কর্তৃপক্ষ।

প্রশ্ন অনেক: দশম পর্ব

রবীন্দ্রনাথ শুধু বিশ্বকবিই শুধু নন, ছিলেন সমাজ সংস্কারকও