নয়াদিল্লি: বিশ্ব উষ্ণায়নে মেরু অঞ্চলের বরফ গলছে। বাড়ছে সমুদ্রের জলস্তর। প্রমাদ গুনছে সমুদ্র তীরবর্তী শহর,গ্রাম, জনপদ। আর সেই ভয়ঙ্কর বাস্তবের ছবি আরও একবার সামনে এল। পশ্চিম অ্যান্টারটিকার হিমবাহের উপর ২০ কিলোমিটার বিস্তৃত ফাটল ধরা পড়েছে। ইউরোপিয়ান স্পেস এজেন্সির স্যাটেলাইট কোপারনিকাস এমনই চাঞ্চল্যকর ছবি তুলে পাঠিয়েছে।

এমনিতেই প্রতি বছর গড়ে বেড়ে চলেছে পৃথিবীর তাপমাত্রা ফলে পাল্লা দিয়ে গলে যাচ্ছে দুই মেরু অঞ্চলের হিমবাহের বরফ। অনেক সময়েই হিমবাহের গায়ে দেখা দিচ্ছে বিশাল বিশাল ফাটল। মূল হিমবাহ থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে অনেক সময় হিমবাহের একটা বিরাট অংশ সমুদ্রে ভেসে চলে যাচ্ছে মেরু লাগোয়া দেশের দিকে। গত ২৫ বছর ধরেই বিপদজনক হারে গলছে হিমবাহ। বিশেষজ্ঞদের মতে ১৯৯২ থেকে ২০১৮ এই বছরের মধ্যে হিমবাহের গলে যাওয়ার বেড়েছে উল্লেখযোগ্য ভাবে।

আরও পড়ুন – বাজি নয় আলোয় সাজুক তিলোত্তমা, সাইকেল র‍্যালিতে অভিনব মিছিল শহরে

আর দ্রুত বরফ গলার পিছনে মূল ভিলেন হয়ে দাঁড়িয়েছে বিশ্ব উষ্ণায়ন বা গ্লোবাল ওয়ার্মিং। এরফলেই মেরু অঞ্চল থেকে বরফ সমুদ্রের জলস্তর বাড়িয়ে চলেছে ক্রমাগত।

গত মাসে ৪০% গ্রিনল্যান্ডের হিমবাহের বরফ গলে গিয়েছে। এই গলে যাওয়া বরফের পরিমাণ প্রায় ২২ গিগাটন। মূলত গ্রিনল্যান্ডেই প্রতিদিন প্রায় ২ কোটি টন বরফ গলে যায়।