স্টাফ রিপোর্টার, কলকাতা: শনিবার থেকেই করোনা সন্দেহভাজন ও আক্রান্তদের কলকাতা মেডিক্যাল কলেজে ভর্তি নেওয়া হবে। মঙ্গলবার হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ একথা জানিয়েছে।

এদিন বিকালে কলকাতা মেডিক্যাল কলেজে করোনার চিকিৎসা ব্যবস্থার প্রস্তুতি খতিয়ে দেখতে যান মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। কথা বলেন সুপারের সঙ্গে। এরপরই করোনা আক্রান্ত ও সন্দেহভাজনদের চিকিৎসার জন্য শনিবার থেকেই কলকাতা মেডিক্যালে রোগী ভর্তি কথা ঘোষণা করে কর্তৃপক্ষ।

বেলেঘাটা আইডির উপর চাপ কমাতেই কলকাতা মেডিক্যাল কলেজকে করোনা আক্রান্তদের জন্য ঢেলে সাজার পরিকল্পনা নেয় রাজ্য সরকার। দেশের মধ্যে এটাই প্রথম কোনও হাসপাতাল, যাকে শুধুমাত্র করোনার চিকিৎসার জন্য এভাবে প্রস্তুত করা হয়েছে।

কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, প্রাথমিকভাবে হাসপাতালে ৩০০ বেডের ব্যবস্থা করা হয়েছে। সোমবার থেকে সিপিইউ ও ভেন্টিলেশনেও রোগী ভর্তি শুরু হয়ে যাবে। মেডিক্যাল কলেজ কর্তৃপক্ষ আরও জানিয়েছে, মোট ৩০০০ বেডের ব্যবস্থা করা তাদের টার্গেট। এছাড়াও, হাসপাতালের ৫ নম্বর গেটের নাম রাখা হয়েছে করোনা গেট।

গত কয়েকদিনে বাংলায় করোনা আক্রান্ত বেড়েছে। আজও কলকাতার দুজনের শরীরে করোনা সংক্রমণ মিলেছে। একজন ফিরেছিলেন লন্ডন থেকে। অন্যজন মিশর থেকে। এই পরিস্থিতিতে অনেকেই মনে করছেন গোষ্ঠী সংক্রমণ বা কমিউনিটি ট্রান্সমিশন শুরু হয়ে গিয়েছে। এর মধ্যেই আবার আজ কেন্দ্র সতর্ক করে বলেছে করোনা সংক্রমণ আরও বাড়তে পারে। তাই পরিস্থিতির গুরুত্ব বুঝে শনিবারই শুরু হচ্ছে.মেডিক্যালের করোনা আইসোলেশন ওয়ার্ড।

কলকাতার 'গলি বয়'-এর বিশ্ব জয়ের গল্প