বেজিং: করোনা মোকাবিলায় এবার পাকিস্তানের পাশে দাঁড়াল ‘বন্ধু’ চিন। পাকিস্তানে যখন লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে আক্রান্তের সংখ্যা, তখন সাহায্য করতে পাকিস্তানে অস্থায়ী হাসপাতাল গড়ার সিদ্ধান্ত নিল চিন।

শুধু হাসপাতাল না, একই সঙ্গে করোনা মোকাবিলায় চিনে মেডিকেল টিম পাঠানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে বেজিং। সোমবার পাকিস্তানের স্বাস্থ্যমন্ত্রকের তরফে জানানো হয়েছে সেদেশে ইতিমধ্যে আক্রান্তের সংখ্যা পৌঁছেছে ১৬৬৪। এর মধ্যে মৃত্যু হয়েছে ১৮ জনের।

চিনা বিদেশ মন্ত্রকের মুখপাত্র হুয়া চিয়াং সংবাদমাধ্যমকে জানিয়েছেন, আমরা বুঝতে পারছি এই মুহূর্তে পাকিস্তান কোন পরিস্থিতির মধ্যে দিয়ে যাচ্ছে।

চিনা সরকার পাকিস্তানে মাস্ক, টেস্টিং কিট ইত্যাদি সরবরাহ করছে। এছাড়া পাকিস্তানে একটি হাসপাতাল তৈরির সিদ্ধান্ত নিয়েছে চিন। বেজিং-এর তরফে জানানো হয়েছে, গত সপ্তাহেই এই হাসপাতাল নির্মাণের কাজ শুরু করা হয়েছে।

ফেব্রুয়ারি মাসে চিনে করোনার ব্যাপক দাপটের সময় চিন মাত্র অল্প কয়েকদিনে উহানে ২৩০০ শয্যার একটি হাসপাতাল তৈরি করেছিল। যা করোনা মোকাবিলায় গুরুত্বপূর্ণ অবদান রেখেছিল।

শনিবার চিন থেকে পাকিস্তানের উদ্দেশ্যে রওনা দেয় আটজনের বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকের একটি দল। এছাড়া পাক অধিকৃত কাশ্মীরেও ওষুধ পাঠিয়েছে চিন।