প্যারিস: নতুন করে ফের রেকর্ড গড়ল ফ্রান্স। শেষ ২৪ ঘন্টায় করোনা আক্রান্ত হলেন ৫২ হাজার ১০ জন। সরকারি পরিসংখ্যান জানাচ্ছে প্রথম ধাক্কার পর নতুন করে এই প্রথম দৈনিক সংক্রমণ ৫০ হাজারের গণ্ডি ছাড়াল।

দ্য পাবলিক হেলথ ফ্রান্স (এসপিএফ) কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, শেষ ২৪ ঘন্টায় মৃত্যু হয়েছে ১১৬ জনের। ফ্রান্সে করোনার প্রাদুর্ভাব শুরুর পর থেকে মোট মৃতের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৩৪,৭৬১।

এমনকি এখন অবধি মোট ১ মিলিয়নের বেশি কোভিড আক্রান্তের সংখ্যা পার করে ফেলেছে ফ্রান্স। এই মুহূর্তে ফ্রান্স মুলুকে ১০০ জনের টেস্ট করা হলে ১৭ জনের দেহেই মিলছে ভাইরাস। যা কিনা সেপ্টেম্বরের শুরুতে ছিল মাত্র ৪.৫ শতাংশ।

দ্বিতীয় এই করোনা ঢেউ রুখতে রাত ন’টা থেকে সকাল ছ’টা পর্যন্ত কারফিউ জারি করেছে ফ্রান্স সরকার। করোনার সঙ্গে লড়তে মরিয়া ফ্রান্স। তবে শুধু ফ্রান্স না, জার্মানি, নেদারল্যান্ডস, স্পেন-সহ একাধিক দেশ ফের করোনা প্রতিরোধে কড়া অবস্থান নিতে শুরু করেছে। বলা চলে ইউরোপ এখন করোনার দ্বিতীয় ওয়েভ নিয়ে আশঙ্কিত।

বিস্তারিত আসছে…

লাল-নীল-গেরুয়া...! 'রঙ' ছাড়া সংবাদ খুঁজে পাওয়া কঠিন। কোন খবরটা 'খাচ্ছে'? সেটাই কি শেষ কথা? নাকি আসল সত্যিটার নাম 'সংবাদ'! 'ব্রেকিং' আর প্রাইম টাইমের পিছনে দৌড়তে গিয়ে দেওয়ালে পিঠ ঠেকেছে সত্যিকারের সাংবাদিকতার। অর্থ আর চোখ রাঙানিতে হাত বাঁধা সাংবাদিকদের। কিন্তু, গণতন্ত্রের চতুর্থ স্তম্ভে 'রঙ' লাগানোয় বিশ্বাসী নই আমরা। আর মৃত্যুশয্যা থেকে ফিরিয়ে আনতে পারেন আপনারাই। সোশ্যালের ওয়াল জুড়ে বিনামূল্যে পাওয়া খবরে 'ফেক' তকমা জুড়ে যাচ্ছে না তো? আসলে পৃথিবীতে কোনও কিছুই 'ফ্রি' নয়। তাই, আপনার দেওয়া একটি টাকাও অক্সিজেন জোগাতে পারে। স্বতন্ত্র সাংবাদিকতার স্বার্থে আপনার স্বল্প অনুদানও মূল্যবান। পাশে থাকুন।.

করোনা পরিস্থিতির জন্য থিয়েটার জগতের অবস্থা কঠিন। আগামীর জন্য পরিকল্পনাটাই বা কী? জানাবেন মাসুম রেজা ও তূর্ণা দাশ।