লন্ডন: বিশ্বকাপের জন্য সুসজ্জিত হয়ে উঠেছে রাশিয়া৷ আলোয় মুড়ে ফেলা হয়েছে মস্কোর লুজিনিক স্টেডিয়াম থেকে সরানস্ক শহরের মরডোভিয়া এরিনা৷ পুরো বিশ্ব অধীর আগ্রহে তাকিয়ে রয়েছে ফুটবলে সবচেয়ে বড় লড়াইয়ের জন্য৷ কিন্তু এত কিছুর মধ্যেও সুর কি কাটছে না? অবশ্যই কাটছে৷ মাঠে রাশিয়ান হুলিগানসদের বর্ণবিদ্বেষী মন্তব্য করার রেওয়াজ চিন্তায় ফেলছে ইংরেজ ফুটবলারদের৷

রাশিয়ান ফুটবলের একটি কুখ্যাত অংশ হল হুলিগানস৷ উগ্র ফুটবল সমর্থকদের এইসব গ্রুপের কাজই হল ম্যাচ চলাকালীন মাঠের মধ্যে নানারকম অশান্তির সৃষ্টি করা৷ এমনকি ফুটবলারদের উদেশ্যে বর্ণবিদ্বেষী মন্তব্য করা থেকেও বিরত থাকেন না এই হুলিগানসরা৷

ইংল্যান্ড এবং  রাশিয়ান হুলিগানসরা এর আগেও একাধিকবার ঝামেলায় জড়িয়েছেন৷ ২০১৬ ইউরো কাপে দুই দেশের উগ্র ফুটবল সমর্থকদের লড়াইকে কেন্দ্র করে স্টেডিয়ামের গ্যালারি কার্যত রণক্ষেত্রে পরিণত হয়েছিল৷ রাশিয়াতে বিশ্বকাপ শুরুর আগে হুলিগানসরা বেশ চিন্তায় রাখছে ইংল্যান্ডের ফুটবলারদের৷বিষয়টি নিয়ে উদ্বিগ্ন ম্যাঞ্চেস্টার ইউনাইটেডের ফুটবলার অ্যাসলে ইয়ং বলেন, ‘আমরা যখন মাঠে থাকব, জানিনা আমাদের প্রতিক্রিয়া কি হবে! আমরা এই বিষয়টা নিয়ে নিজেদের মধ্যে কথা বলেছি৷ আশা রাখছি ফিফা যে কোনও ধরনের বর্ণবিদ্বেষী মন্তব্যকে কঠোরভাবে সামলাবে৷’