স্টাফ রিপোর্টার, কোচবিহার: গোলা বারুদের শব্দই যেন দস্তুর দিনহাটায়৷ কয়েক দিন বাদে বাদেই দিনহাটার রাজনৈতিক সংঘর্ষ খবরে উঠে আসে৷ তেমনি দিনহাটা থানার গোসানীমারিতে বল খেলতে গিয়ে বোমার আঘাতে আহত হয়েছে পাঁচ কিশোর কিশোরী৷

 

স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, শুক্রবার দুপুরে মাঠে খেলছিল কয়েকজন কিশোর কিশোরী৷ তখন তাদের বলটি ধান খেতে চলে যায়৷ তারা বলটি আনতে ধান ক্ষেতে যায়৷ সেখানেই লুকানো ছিল বোমা৷ তাদের অজান্তেই বোমাগুলি ফেটে যায়৷ আহত হয় পাঁচ জন৷ আহতদের মধ্যে এক কিশোরের আঘাত গুরুতর হওয়ায় তাকে শিলিগুড়ি চিকিৎসার জন্য পাঠানো হয়েছে। কোনও রাজনৈতিক দল বোমাগুলি লুকিয়ে রেখেছিল কীনা বা কোথা থেকে এলো বোমাগুলি তার তদন্তে নেমেছে পুলিশ।

এদিনই সকালে দিনহাটার খোচাবাড়ি বাজারে এক তৃণমূল কংগ্রেস কর্মী গুলিবিদ্ধ হয়েছেন। স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, আহতের নাম রতন কুমার নাথ৷ ঘটনার সময় তিনি খোচাবাড়ি বাজারে একটি চায়ের দোকানে বসেছিলেন৷ অভিযোগ, সেই সময় একটি মোটর বাইকে চেপে অচেনা দুই যুবক এসে তাঁকে লক্ষ্য করে গুলি চালায়৷ ঘটনাস্থলেই লুটিয়ে পড়েন রতন। পরে স্থানীয়রা তাঁকে উদ্ধার করে দিনহাটা মহকুমা হাসপাতালে নিয়ে যান৷ সেখানে তাঁর অবস্থার অবনতি হলে তাঁকে নিয়ে যাওয়া হয় কোচবিহার সরকারি মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতালে৷ সেখানে তাঁর শারীরিক অবস্থার কোনও উন্নতি না হলে তাঁকে নিয়ে যাওয়া হয় শিলিগুড়ির এক বেসরকারি হাসপাতালে৷ ঘটনার পর থেকে এলাকা বেশ থমথমে।

স্থানীয় তৃণমূল কংগ্রেস নেতা মিন্টু হোসেনের দাবি, আহত রতন নাথ তৃণমূল কংগ্রেসের সক্রিয় কর্মী৷ তবে এই ঘটনার পিছনে যুব তৃণমূল কংগ্রেসের হাত থাকলেও থাকতে পারে বলে মনে করেন৷ তাঁর দাবি বেশ কিছুদিন ধরে এই এলাকায় যুব তৃণমূল কংগ্রেস শক্তি বৃদ্ধি করেছে৷ তারা তৃণমূল কর্মীদের হুমকি দিচ্ছে। যদিও অভিযোগ মানতে নারাজ যুব নেতৃত্ব৷ তাঁদের দাবি এই ঘটনার সঙ্গে রাজনীতির যোগ নেই৷ ব্যক্তিগত কারণে এই হামলা।