পালঘর: দেশ জুড়ে করোনা মহামারীর জেরে উদ্বিগ্ন কেন্দ্রীয় সরকার। একই সঙ্গে একাধিক রাজ্যর তরফে নেওয়া হচ্ছে বেশ কিছু পদক্ষেপ। আর সেই কারণে এবারে পালঘরে আগামী পাঁচদিনের জন্য জারি করা হল লক ডাউন। শেষ তিনদিনে প্রায় ১০০ টির বেশি নয়া করোনা আক্রান্তের খবর সামনে আসাতে নেওয়া হয়েছে এই সিদ্ধান্ত। মনে করা হচ্ছে এর ফলে কিছুটা হলেও নিয়ন্ত্রন হবে করোনা।

জানা গিয়েছে এই লক ডাউন ১৪ অগষ্ট থেকে আগামী ১৮ তারিখ পর্যন্ত চলবে। এই লক ডাউন চলাকালীন ওই এলাকাতে বন্ধ থাকবে সব ধরনের দোকান। এই মুহূর্তে দেশে করোনার জেরে সব থেকে বেশি জর্জরিত মরাঠাভুমি। আর সেই কারণেই প্রশাসনের নেওয়া হয়েছে এই পদক্ষেপ। এই লক ডাউন চলাকালীন একাধিক দোকান বন্ধের পাশপাশি কেবলমাত্র পরিসেবা চালু থাকবে ফার্মেসি গুলি ও ডেয়ারি শপ গুলির ক্ষেত্রে। তা স্বাভাবিক নিয়ম মতই চালু থাকবে।

তবে কোন রকম হোম ডেলিভারির পরিষেবা চালু থাকবে না। মহারাষ্ট্রে ক্রমেই বাড়ছে করোনা আক্রান্তের হার। আর সেই কারণেই এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বলে জানা গিয়েছে। এছাড়া লক ডাউন চলাকালীন বন্ধ থাকবে সব ধরনের ব্যাক্তিগত পরিবহণ।

এর পাশপাশি বন্ধ থাকবে পেট্রোল পাম্পগুলিও। এমনটা জানানো হয়েছে পালঘর প্রশাসনের তরফে। তবে প্রয়োজনীয় পরিসেবার ক্ষেত্রে এবং সরকারি পরবহনের ক্ষেত্রে ছাড় দেওয়া হবে এই নিসেধাজ্ঞা।পাশপাশি লক ডাউন চলাকালীন ব্যাংক এবং পোস্ট অফিস পরিষেবা চালু থাকবে। পাশপাশি একাধিক কলকারখানাও বন্ধ রাখা হবে। পাশপাশি জিম, শপিং মল, সুইমিং পুল সহ বেশ কিছু জায়গা বন্ধ রাখা হবে পাশপাশি নিষেধাজ্ঞা জারি রয়েছে জমায়েতের উপরেও। করোনার জেরে এবার এই জেলাতেও লাগু হল লক ডাউনের।

প্রশ্ন অনেক: দশম পর্ব

রবীন্দ্রনাথ শুধু বিশ্বকবিই শুধু নন, ছিলেন সমাজ সংস্কারকও