নয়াদিল্লি : নতুন নির্দেশিকা ইউনিভার্সিটি গ্রান্ট কমিশন বা ইউজিসির। ২০২০-২১ সালে পাঠ্যবর্ষের জন্য ক্লাস চালু হবে পয়লা নভেম্বর থেকেই। বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলিকে তেমনই নির্দেশ দিয়েছে ইউজিসি। জানানো হয়েছে অক্টোবরেই শেষ করতে হবে প্রথম বর্ষে ভর্তি প্রক্রিয়া। এজন্য প্রয়োজনীয় এন্ট্রান্স বা মেধা তালিকা প্রকাশের কাজ শুরু করার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

করোনা পরিস্থিতির কথা মাথায় রেখে বিশেষ কিছু নির্দেশিকা দিয়েছে ইউজিসি। জানানো হয়েছে বিশ্ববিদ্যালয়গুলি ক্লাস শুরু করবে ১৮ই নভেম্বর থেকে। শুক্রবার ট্যুইট করে এই তথ্য দিয়েছে কেন্দ্রের শিক্ষামন্ত্রী রমেশ পোখরিয়াল নিশঙ্ক। তিনি জানান ইউজিসির প্রস্তাব মেনে পয়লা নভেম্বর থেকে কলেজে প্রথম বর্ষের ক্লাস শুরুর কথা জানানো হচ্ছে।

এজন্য প্রয়োজনীয় পরীক্ষা নেওয়ার পদ্ধতি দ্রুত শুরু করার পরিকল্পনার কথা জানানো হয়েছে। https://t.co/HTMOrA0jNl#UGCGuidelines pic.twitter.com/1i7xhumDk7 এই লিংকে ক্লিক করে ইউজিসির দেওয়া তথ্য মিলতে পারে বলে জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী। ইউজিসির দেওয়া গাইড লাইন অনুযায়ী, শূণ্য পদগুলিতে অ্যাডমিশনের জন্য আবেদন করার শেষ তারিখ ৩১শে নভেম্বর।

ইউজিসির পক্ষ থেকে দেওয়া গাইডলাইন :

১. যে সব কলেজের ভর্তির প্রক্রিয়া ইতিমধ্যেই চালু করে দেওয়া হয়েছে, তাঁরা পয়লা নভেম্বর থেকে ক্লাস চালু করতে পারে। প্রয়োজনীয় নথি জমা দেওয়ার শেষ দিন ডিসেম্বরের ৩১ তারিখ ধার্য করা হয়েছে।

২. অক্টোবরের শেষের মধ্যে কলেজে ভর্তির মেধা তালিকা প্রকাশ বা পরীক্ষা নেওয়ার মতো কাজগুলি সম্পন্ন করতে হবে। সেগুলি বাদে বাকি শূণ্যপদে ভর্তি হওয়ার আবেদনের সময়সীমা ৩০শে নভেম্বর।

৩. ইউজিসির নির্দেশ ২০২১ সালের ৮ই মার্চ থেকে ২৬শে মার্চের মদ্যে প্রথম সেমেস্টার বা বার্ষিক পরীক্ষা নিয়ে নিতে হবে। ক্লাস চলবে সপ্তাহে ছয় দিন। প্রতিটি বিশ্ববিদ্যালয়কেই এই নিয়ম মেনে চলতে হবে।

এদিকে, ক্রমশ বাড়ছে সংক্রমণ! করোনাতে আক্রান্ত হওয়ার ক্ষেত্রে প্রত্যেকদিন প্রত্যেকদিনের রেকর্ড ভাঙছে। প্রায় লক্ষের কাছে সংক্রমণ ঘটেছে। দেশের সব রাজ্যেই করোনাতে সংক্রমণের হার বাড়ছে।

এই পরিস্থিতিতে গত কয়েকদিন আগে স্কুল খোলারও কথা বলে কেন্দ্র। বলা হয়েছিল ২১ সেপ্টেম্বর থেকে স্কুল খোলা যাবে। যদিও ছোটদের নয়, বড়দের স্কুল খোলার কথা বলা হয়। যেখানে ক্রমশ সংক্রমণ বাড়ছে সেখানে স্কুল খোলা নিয়ে প্রশ্ন উঠতে থাকে। বিতর্ক বাড়তে থাকে। এই পরিস্থিতিতে কিছুটা হলেও পিছু হঠে কেন্দ্র। নতুন করে স্কুল খোলা বিজ্ঞপ্তি দেওয়া হয়। কেন্দ্র জানিয়ে দেয় ২১ সেপ্টেম্বর থেকে স্কুলগুলি পুনরায় চালু করা বাধ্যতামূলক নয়।

প্রশ্ন অনেক-এর বিশেষ পর্ব 'দশভূজা'য় মুখোমুখি ঝুলন গোস্বামী।