কলকাতা: প্রধানমন্ত্রী হয়েছেন ৬ বছর৷ এতদিন কোথায় ছিলেন তিনি। হঠাৎ করে একুশের ভোটের আগে দুর্গাপুজো নিয়ে তৎপর হয়ে উঠেছেন৷ বাংলার দুর্গাপুজো উদ্বোধন নিয়ে মোদীকে কটাক্ষ রাজ্যের পুর ও নগরোন্নয়ন মন্ত্রী ফিরহাদ হাকিমের৷

বৃহস্পতিবার সল্টলেকের ইজেডসিসিতে দুর্গাপুজোর উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী৷ ভার্চুয়ালের মাধ্যমে বাংলার এই পুজোর উদ্বোধন করে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী৷ পরনে খাদির পাঞ্জাবি ও ধুতি। মুখে বাংলা ভাষা। বাঙালি সংস্কৃতিতেই রাজ্যের মানুষকে দুর্গাপুজোর শুভেচ্ছা জানালেন তিনি৷

তারপরই রাজ্যের মন্ত্রী ফিরহাদ হাকিমের প্রতিক্রিয়া, প্রধানমন্ত্রী হয়েছেন ৬ বছর। এতদিন কেন দুর্গাপুজো নিয়ে মাথা ঘামাননি? সামনে বিধানসভা ভোট বলেই কী এই তৎপরতা? কটাক্ষের সুরে প্রশ্ন মন্ত্রীর৷

পাশাপাশি মন্ত্রী বলেন, বাংলায় এতদিন দূর্গা পুজোয় আসেননি৷ দুর্গাপুজো সমন্ধে কোনও উৎসাহ ছিল না৷ ২১শে বাংলার স্বপ্ন দেখার জন্য হঠাৎ দুর্গাপুজো নিয়ে এতটা সক্রিয়। এটা বাংলার কৃষ্টি বাংলার সংস্কৃতি নয়৷ বাংলা নিজেরাই মাথা উচু করে থাকবে ৷ বাংলা ইউপি, গুজরাটের কাছে মাথা নত করবে না৷

প্রধানমন্ত্রীর ভার্চুয়ালের মাধ্যমে বাংলার পুজোর উদ্বোধন উদ্বোধন উপলক্ষে সল্টলেকের ইজেডসিসিতে হাজির ছিলেন রাজ্য বিজেপির প্রথম সারির নেতা নেত্রীরা৷ এছাড়া অনেক কর্মী ও সমর্থক৷ উদ্বোধনের আগে একটি মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান হয়৷

ষষ্ঠীর দিন ইজেডসিসিতে হলের ভিতরেই অনলাইনে মোদীর ভাষণ দেখানোর ব্যবস্থা করা হবে। শুধু সেই হলের মধ্যেই নয়, রাজ্যের বিভিন্ন জায়গাতে মোদীর ভাষণ দেখানোর ব্যবস্থা করা হয়।

জেলবন্দি তথাকথিত অপরাধীদের আলোর জগতে ফিরিয়ে এনে নজির স্থাপন করেছেন। মুখোমুখি নৃত্যশিল্পী অলোকানন্দা রায়।