শিয়রে ফিফা বিশ্বকাপ ২০১৮৷ শেষ প্রস্তুতিতে ৩২টি দেশ৷ চূড়ান্ত স্কোয়াড নিয়ে ইতিমধ্যেই রাশিয়ায় পা দিতে শুরু করেছে অংশগ্রহণকারী দলগুলি৷ এক ঝলকে দেখে নেওয়া যাক ইউরোপ সেরা পর্তুগাল দলের হাল হকিকৎ৷ চোখ বুলিয়ে নেওয়া যাক স্কোয়াড, সূচি ও পর্তুগালের বিশ্বকাপ ইতিহাসেও৷

পর্তুগাল (গ্রুপ-বি)
ফিফা ব়্যাংকিং: ৪ (৭ জুন, ২০১৮ প্রকাশিত তালিকা অনুযায়ী)
বিশ্বকাপ খেলছে: ৭ বার
প্রথম বিশ্বকাপ: ১৯৬৬ (তৃতীয় স্থান)
শেষ বিশ্বকাপ: ২০১৪ (গ্রুপ পর্যায়, ১৮তম স্থান)
সেমিফাইনালে উঠেছে: ২ বার
ফাইনালে উঠেছে:
চ্যাম্পিয়ন হয়েছে:
সেরা ফল: তৃতীয় (১৯৬৬)
পরিসংখ্যান: ম্যাচ-২৬, জয়-১৩, ড্র-৪, হার-৯, গোল করেছে-৪৩, গোল হজম করেছে-২৯

কোচ: ফার্নান্ডো স্যান্টোস
তারকা ফুটবলার: ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডো

পর্তুগাল স্কোয়াড:
গোলকিপার: অ্যান্থনি লোপেজ (অলিম্পিক লিয়ঁ), বেটো (গোজতেপে এসকে), রুই প্যাট্রিসিও (স্পোর্টিং লিসবন)৷

ডিফেন্ডার: ব্রুনো আলভেস (রেঞ্জার্স এফসি), হোসে ফন্তে (দালিয়ান য়িফাং এফসি), মারিও রুই (নাপোলি), পেপে (বেসিকতাস জেকে), রাফায়েল গুয়েরেইরো (বরুশিয়া ডর্টমুন্ড), রুবেন ডায়াস (বেনফিকা), রিকার্ডো (এফসি পোর্তো), সেডরিক (সাউদাম্পটন এফসি)৷

মিডফিল্ডার: বার্নাদো সিলভা (ম্যাঞ্চেস্টার সিটি), ব্রুনো ফার্নান্ডেজ (স্পোর্টিং লিসবন), জোয়াও মারিও (ওয়েস্ট হ্যাম ইউনাইটেড), জোয়াও মৌতিনহো (মোনাকো), ম্যানুয়েল ফার্নান্ডেজ (লোকোমোটিভ মস্কো), উইলিয়াম (স্পোর্টিং লিসবন), আদ্রিয়েন সিলভা (লেস্টার সিটি)৷

ফরোয়ার্ড: ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডো (রিয়াল মাদ্রিদ), আন্দ্রে সিলভা (এসি মিলান), বার্নান্ডো সিলভা, জেসন মার্টিনস (স্পোর্টিং লিসবন), গঞ্জালো গুইডেজ (ভ্যালেন্সিয়া), রিকার্ডো কুয়ারেসমা (বেসিকতাস জেকে)৷

গ্রুপে প্রতিপক্ষ: স্পেন, মরক্কো, ইরান

সূচি:
১৫ জুন: স্পেন (সোচি, রাত ১১.৩০)
২০ জুন: মরক্কো (মস্কো, বিকেল ৫.৩০)
২৫ জুন: ইরান (সরানস্ক, রাত ১১.৩০)

লাল-নীল-গেরুয়া...! 'রঙ' ছাড়া সংবাদ খুঁজে পাওয়া কঠিন। কোন খবরটা 'খাচ্ছে'? সেটাই কি শেষ কথা? নাকি আসল সত্যিটার নাম 'সংবাদ'! 'ব্রেকিং' আর প্রাইম টাইমের পিছনে দৌড়তে গিয়ে দেওয়ালে পিঠ ঠেকেছে সত্যিকারের সাংবাদিকতার। অর্থ আর চোখ রাঙানিতে হাত বাঁধা সাংবাদিকদের। কিন্তু, গণতন্ত্রের চতুর্থ স্তম্ভে 'রঙ' লাগানোয় বিশ্বাসী নই আমরা। আর মৃত্যুশয্যা থেকে ফিরিয়ে আনতে পারেন আপনারাই। সোশ্যালের ওয়াল জুড়ে বিনামূল্যে পাওয়া খবরে 'ফেক' তকমা জুড়ে যাচ্ছে না তো? আসলে পৃথিবীতে কোনও কিছুই 'ফ্রি' নয়। তাই, আপনার দেওয়া একটি টাকাও অক্সিজেন জোগাতে পারে। স্বতন্ত্র সাংবাদিকতার স্বার্থে আপনার স্বল্প অনুদানও মূল্যবান। পাশে থাকুন।.