office dress

কলকাতা: নিজেকে একটু ফ্যাশনেবল দেখাক, এমন আজকাল বেশিরভাগ ছেলে-মেয়েরাই চায়। কিন্তু সবার চোখে নিজেকে সুন্দর করতে গেলেও সঠিক ফ্যাশন সেন্স থাকা দরকার। নিজস্ব প্রাকৃতিক সৌন্দর্য আর স্বকীয়তাকেও ধরে রাখতে হবে তার মধ্যেই। আপনি ফ্যাশন মেনে চলুন বা ফ্যাশনের বাইরে গিয়ে নিজের পরিচয় বানান, সবেতেই আপনার নিজস্বতা তুলে ধরতে গেলে কিছু টিপস দরকার যা কখনোই ভোলা উচিত নয়। মেয়েদের ক্ষেত্রে রকমারি ফ্যাশনে কোন ড্রেস পরলে মানাবে, কোন ড্রেসের সঙ্গে কোন ধরণের জুয়েলারি ও ব্যাগ বা জুতো মানানসই হবে, কোন ড্রেসের সঙ্গে কেমন হবে হেয়ার স্টাইল, আবার দিনে ও রাতে কেমন মেকআপ করতে হবে- এই সাধারণ বিষয়গুলো অবশ্যই জানতে হবে। তাই এই কয়েকটি টিপস এখনই জেনে নিন।

১. আরামদায়ক পোশাক: এমন পোশাক পরবেন না যা পরে যায়নি স্বচ্ছন্দ অনুভব করেন না। আপনার ব্যক্তিত্বে কোন পোশাক ফুটবে, কোন পোশাকে আপনি আরামবোধ করবেন, তা কেবলমাত্র আপনিইবিচার করতে পারেন। তাই কোনো পোশাক কেনার আগে ট্রায়াল দিয়ে নেবেন। আপনার উচ্চতা, রঙ, সাইজ এসবও বোঝা জরুরি কাপড় বাছাইয়ের আগে। অতিরিক্ত আঁটসাঁট কিংবা অতিরিক্ত ঢিলেঢালা পোশাক দুটোই মানাতে পারে আপনাকে যদি ক্যারি করতে পারেন আপনি। হেয়ার কাটিংয়ের সময়ে নিজের মুখের অবয়বের সাথে কোনটা ম্যাচ করবে তা আগে বিচার করবেন।

২. সিম্পল লুক: যাই পরুন না কেন, সিম্পল ভাব যেন হারিয়ে না যায় তা খেয়াল রাখবেন। আজকাল জাঁকজমক সাজ সবাই ভালোবাসে না। নিজের প্রাকৃতিক সৌন্দর্য যাতে প্রতিফলিত হয় সেরকম পোশাক আর মেকআপ বাছাই করা দরকারি। জমকালো মেকআপ আর সাজগোজ সবসময় চলে না। তবে যে কোনো পোশাকে যেমন গয়না চলতে পারে তার একটা লিংক দেওয়া হলো। ক্লিক করে দেখুন আপনারক কোনটা পছন্দ।

৩. ফ্যাশন ট্রেন্ড: এখন কোন ফ্যাশন বাজার কাঁপাচ্ছে তা অল্পবিস্তর খোঁজ রাখুন। কুর্তি বা টপের কিরাম রকমারি বাহার এখন মেয়েরা চাইছে তা দেখুন। তবেই আপনি নিজেকে আর সবার থেকে আলাদা করতে পারবেন।

লাল-নীল-গেরুয়া...! 'রঙ' ছাড়া সংবাদ খুঁজে পাওয়া কঠিন। কোন খবরটা 'খাচ্ছে'? সেটাই কি শেষ কথা? নাকি আসল সত্যিটার নাম 'সংবাদ'! 'ব্রেকিং' আর প্রাইম টাইমের পিছনে দৌড়তে গিয়ে দেওয়ালে পিঠ ঠেকেছে সত্যিকারের সাংবাদিকতার। অর্থ আর চোখ রাঙানিতে হাত বাঁধা সাংবাদিকদের। কিন্তু, গণতন্ত্রের চতুর্থ স্তম্ভে 'রঙ' লাগানোয় বিশ্বাসী নই আমরা। আর মৃত্যুশয্যা থেকে ফিরিয়ে আনতে পারেন আপনারাই। সোশ্যালের ওয়াল জুড়ে বিনামূল্যে পাওয়া খবরে 'ফেক' তকমা জুড়ে যাচ্ছে না তো? আসলে পৃথিবীতে কোনও কিছুই 'ফ্রি' নয়। তাই, আপনার দেওয়া একটি টাকাও অক্সিজেন জোগাতে পারে। স্বতন্ত্র সাংবাদিকতার স্বার্থে আপনার স্বল্প অনুদানও মূল্যবান। পাশে থাকুন।.

করোনা পরিস্থিতির জন্য থিয়েটার জগতের অবস্থা কঠিন। আগামীর জন্য পরিকল্পনাটাই বা কী? জানাবেন মাসুম রেজা ও তূর্ণা দাশ।