কোচবিহার: আতঙ্কের রাত কাটলেও ভয় এখনও তাড়া করছে। আবারও যদি ধরে নিয়ে যায় ওরা। ফলে ঘরে তথা দেশে ফিরে এলেও রীতিমত চিন্তিত বুধবার অপহৃত হওয়া কৃষক জগবন্ধু রায়। তাঁকে অপহরণ করে বাংলাদেশে নিয়ে যাওয়া হয়েছিল।

মনে করা হচ্ছে ভারতে অনুপ্রবেশের চেষ্টা করা দুই বাংলাদেশিকে সম্প্রতি সীমান্তের কাছ থেকে আটক করে বিএসএফ। তারই বদলা নিতে জগবন্ধুবাবুকে অপহরণ করেছিল বাংলাদেশিরা। বুধবার রাতে তিনি ফিরে আসতে পেরেছেন দুই দেশের সীমান্তরক্ষী বাহিনির আলোচনার পর। বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) ফিরিয়ে দিয়েছে ভারতীয় কৃষক জগবন্ধু রায়কে। বিএসএফ তাকে গ্রহণ করে। বিএসএফ উত্তরবঙ্গ ডিআইজি মৃদুল সোনওয়াল জানিয়েছেন, এই ঘটনা অনভিপ্রেত। অযথা আতঙ্কের কারণ নেই। সীমান্তরক্ষীরা সতর্ক থাকছে।

বুধবার সকালে কুচলিবাড়ি সীমান্তের ১৩ নম্বর গেটের কাছে চাষ করার সময় জগবন্ধু রায়কে কয়েকজন বাংলাদেশি অপহরণ করে। এর পর সীমান্ত চৌকি ঘিরে বিক্ষোভ দেখান স্থানীয়রা পরিস্থিতি বুঝতে পেরে দ্রুত এলাকা পরিদর্শন করেন বিএসএফ অফিসাররা। শুরু হয় বিজিবির সঙ্গে আলোচনা। ততক্ষণে বিজিবি জানতে পারে সীমান্ত সংলগ্ন বাংলাদেশের কোথায় রয়েছেন জগবন্ধু রায়। দ্রুত তাঁকে উদ্ধার করা হয়।

এরপর আইনগত জটিলতা কাটিয়ে তাঁকে ফের ভারতে পাঠানো হয়েছে। বাড়ি ফিরে এসেছেন জগবন্ধুবাবু। তবে তিনি আতঙ্কিত। সীমান্তের কাঁটা তার সংলগ্ন জমিতেই তাঁর চাষের কাজ। ভবিষ্যতে ফের অপহৃত পারেন বলেই মনে করছেন। তিনি ফিরে এলেও কুচলিবাড়ি এলাকায় ছড়িয়ে রয়েছে ভয়।