নয়া দিল্লি: ইনস্টিটিউট অফ কোম্পানি সেক্রেটারি অফ ইন্ডিয়া (ICSI) তাদের ২০২১ জুনের সিএস (CS) পরীক্ষার আবেদনের উইন্ডোটি (exam application window) চালু করছে। প্রতিষ্ঠানের তরফে চলতি মাসের ১৫ তারিখ আবেদনের উইন্ডোটি চালু করা হবে বলে জানানো হয়েছে। এর পাশাপাশি ২০২১ জুন সেশনের আইসিএসআই সিএস (ICSI CS) এর ফাউন্ডেশন Foundation, এক্সিকিউটিভ Executive এবং পেশাদার প্রোগ্রামগুলির Professional programmes জন্য যে সকল আবেদনকারী ফর্ম পূরণ করতে পারেনি তারাও সুযোগ পাবে বলে জানিয়েছে প্রতিষ্ঠান। আইসিএসআই (ICSI) পরীক্ষার আবেদনের উইন্ডো ২২ মে পর্যন্ত উন্মুক্ত রাখা হবে আবেদনকারীদের জন্য।

ইনস্টিটিউট অফ কোম্পানি সেক্রেটারি অফ ইন্ডিয়া (ICSI) একটি অফিসিয়াল ওয়েবসাইটে icsi.edu ঠিকানা প্রকাশ করেছে, যেখান থেকে সহজে আবেদনকারীরা পরীক্ষার ফর্মটি পূরণ করতে পারবে। তবে ভারতে প্রতিদিন ক্রমবর্ধমান করোনা ভাইরাস বেড়ে চলার কারণে প্রতিষ্ঠান তাদের পরীক্ষা দুটি স্থগিত করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

প্রতিষ্ঠানের তরফে একটি অফিশিয়াল বিজ্ঞপ্তি জারি করে বলা হয়েছে, যে সমস্ত আবেদনকারী জুন ২০২১ সেশনের সিএস (CS) এর ফাউন্ডেশন (Foundation), এক্সিকিউটিভ (Executive), এবং প্রফেশনাল প্রোগ্রাম (Professional Program) পরীক্ষার জন্য বিভিন্ন কারণে আবেদন করতে গিয়ে ব্যর্থ হয়েছে, তাদের জন্য প্রতিষ্ঠান চলতি মাসের ১৫ তারিখ থেকে ২২ তারিখ পর্যন্ত আরও একবার আবেদন উইন্ডোটি চালু করছে।

আইসিএসআই (ICSI) তাদের জুন সেশনের কোম্পানি সেক্রেটারি (Company Secretary CS) সমস্ত পরীক্ষা স্থগিত (postponed) করেছে। এই পরীক্ষাগুলি জুনের ১ তারিখ থেকে ১০ তারিখের মধ্যে অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিল। এর পাশাপাশি কিছুদিন আগে প্রতিষ্ঠান আরও একটি বিজ্ঞপ্তি জারি করে জানিয়েছিল, জুনের ১ থেকে ১০ তারিখ পর্যন্ত অনুষ্ঠিত হতে চলা ফাউন্ডেশন প্রোগ্রাম (Foundation programme), এক্সিকিউটিভ প্রোগ্রাম (পুরানো ও নতুন সিলেবাস) (Executive programme) এবং প্রফেশনাল প্রোগ্রাম (পুরাতন এবং নতুন সিলেবাস) (Professional programme) এর পরীক্ষাগুলিও স্থগিত করা হচ্ছে করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ বেড়ে চলার কারণে।

ইনস্টিটিউট অফ কোম্পানি সেক্রেটারি অফ ইন্ডিয়া (ICSI) তাদের কোম্পানির সেক্রেটারি এক্সিকিউটিভ প্রবেশিকা পরীক্ষা (CSEET) অনুষ্ঠিত করেছিল ৮ মে। করোনা পরিস্থিতি ছাত্রদের স্বাস্থ্য সুরক্ষার কথা ভেবে অনলাইন মাধ্যমে পরীক্ষা নেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছিল প্রতিষ্ঠান। তবে দেখা যায় অনলাইন মাধ্যমে পরীক্ষা দেওয়ার ফলে নানা সমস্যার কারণে অনেক পরীক্ষার্থী পরীক্ষা দিতে অক্ষম হয়। এই সমস্ত পরীক্ষার্থীদের জন্য আইসিএসআই (ICSI) তাদের সিএসইইটি (CSEET) পরীক্ষা নতুন করে আরও একবার নিয়েছিল ১০ মে।

লাল-নীল-গেরুয়া...! 'রঙ' ছাড়া সংবাদ খুঁজে পাওয়া কঠিন। কোন খবরটা 'খাচ্ছে'? সেটাই কি শেষ কথা? নাকি আসল সত্যিটার নাম 'সংবাদ'! 'ব্রেকিং' আর প্রাইম টাইমের পিছনে দৌড়তে গিয়ে দেওয়ালে পিঠ ঠেকেছে সত্যিকারের সাংবাদিকতার। অর্থ আর চোখ রাঙানিতে হাত বাঁধা সাংবাদিকদের। কিন্তু, গণতন্ত্রের চতুর্থ স্তম্ভে 'রঙ' লাগানোয় বিশ্বাসী নই আমরা। আর মৃত্যুশয্যা থেকে ফিরিয়ে আনতে পারেন আপনারাই। সোশ্যালের ওয়াল জুড়ে বিনামূল্যে পাওয়া খবরে 'ফেক' তকমা জুড়ে যাচ্ছে না তো? আসলে পৃথিবীতে কোনও কিছুই 'ফ্রি' নয়। তাই, আপনার দেওয়া একটি টাকাও অক্সিজেন জোগাতে পারে। স্বতন্ত্র সাংবাদিকতার স্বার্থে আপনার স্বল্প অনুদানও মূল্যবান। পাশে থাকুন।.