হাওড়া:  বালি, বেলুড়, নিশ্চিন্দা এলাকায় করোনা ভাইরাস ছড়িয়ে পড়েছে বলে সোস্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করেছিলেন এক যুবক। এভাবে সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে গুজব ছড়ানোয় হাওড়ার এক যুবককে আটক করল নিশ্চিন্দা থানার পুলিশ। পরে ওই যুবক তার ক্ষমা চেয়ে ভুল স্বীকার করে নেয়। এবং সোস্যাল সাইট থেকে ওই পোস্টটি তুলে দেওয়ায় পুলিশ তাকে ছেড়ে দেয়। ঘটনাকে কেন্দ্র করে ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়ে। এই পোস্ট ঘিরে সাধারণ মানুষের মধ্যে রীতিমত আতঙ্ক ঢুকে যায়। কারণ এহেন পোস্ট মুহূর্তের মধ্যে ভাইরাল হয়ে পড়ে। আর তা থেকেই আতঙ্কের সূত্রপাত।

গত ৬ মার্চ নিজের ফেসবুক ওয়ালে ওই পোস্টটি করেছিলেন বালি নিশ্চিন্দার যুবক জ্যোতির্ময়। ওই পোস্ট শেয়ার হতেই ভাইরাল হয়ে যায়। সাধারণ মানুষের মধ্যে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। পুলিশের কাছেও খবর এসে পৌঁছায়। পুলিশ তদন্তে নেমে জানতে পারে বালি নিশ্চিন্দা অঞ্চলের এক যুবক সোশ্যাল মিডিয়ায় করোনা ভাইরাস নিয়ে ওই গুজব ছড়িয়েছে। তার পোস্টে লেখা ছিল বালি, বেলুড়, নিশ্চিন্দা অঞ্চলে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত অনেক মানুষ।

এই সেই বিতর্কিত পোস্ট

এই পোষ্টের পরে নিশিন্দা থানার পুলিশ নড়েচড়ে বসে। ঘটনার তদন্তে নেমে মঙ্গলবার হোলির দিন সকালে ওই যুবককে আটক করে নিশ্চিন্দা থানার পুলিশ। জ্যোতির্ময় নামের ওই যুবককে থানায় এনে পুলিশ জিজ্ঞাসাবাদ করে। যদিও ওই যুবক তার এই কৃতকর্মের জন্য পুলিশের কাছে নিজের ভুল স্বীকার করে। ক্ষমা চেয়ে মুচলেকা দেয়। এর পাশাপাশি সে সোস্যাল সাইট থেকেও পোস্টটি রিমুভ করে দেয়। সকলের কাছে করজোড়ে ক্ষমা চেয়ে নেয়। এরপরই পুলিশ তাকে ছেড়ে দেয়।