নয়াদিল্লি: পরের সপ্তাহে সাধারণ বাজেট ৷ আর এই সময়ে আমজনতার উপর করের বোঝা না চাপানোর পরামর্শ দিলেন দেশের প্রধান বিচারপতি এস এ বোবডে৷ তিনি শুক্রবার আয়কর অ্যাপেলেট ট্রাইব্যুনাল আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে জনগনের উপর করের বোঝা না চাপানোর জন্য সওয়াল করেন৷ তাঁর বক্তব্য, কেউ যদি করফাঁকি দিলে সেটা যেমন অপরাধ, তেমনই সরকার যদি সাধারণ জগনগের উপর অযৌক্তিক অতিরিক্ত করের বোঝা চাপায় সেটাও সামাজিক অবিচারের সামিল ৷
এই প্রসঙ্গে তিনি উদাহরণ হিসেবে তুলে ধরেন,মৌমাছিরা যেমন কোনও রকম আঘাত না-করে ফুল থেকে মধু সংগ্রহ করে তেমন ভাবেই সাধারণ মানুষের কাছ থেকে কর আদায় করা উচিত। তিনি এদিন তাঁর বক্তব্যে, শুধুমাত্র কর কমানো বা আদায়েই সীমাবদ্ধ রাখেননি তেমনই আবার সার্বিক উন্নয়নের পক্ষেও সওয়াল করেছেন

আয়কর অ্যাপেলেট ট্রাইব্যুনাল প্রসঙ্গে প্রধান বিচারপতি জানিয়েছেন, রাজস্ব আদায় এবং দেশের সম্পদ সৃষ্টিতে কর সংক্রান্ত বিচার ব্যবস্থার গুরুত্ব অপরিসীম। তাই কর ট্রাইব্যুনাল এবং অ্যাপেলেট ট্রাইব্যুনালগুলিতে থাকা মামলাগুলির দ্রুত এবং ন্যায্য মীমাংসা দরকার, তা হলেই দেশের কর ব্যবস্থার প্রতি করদাতাদের আস্থা বাড়বে বলে মনে করেন তিনি।

প্রসঙ্গত,শিল্পমহল ইতিমধ্যেই মোদী জমানায় কর সন্ত্রাসের অভিযোগ তুলেছিল৷ কারণ তাঁদের অভিযোগ ছিল করদফতর অনেক সময় অন্যায্য বকেয়া দাবি করে নোটিশ পাঠায় ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠান এবং ব্যবসায়ীদের কাছে৷ ।

যদিও আবার যা পরিস্থিতি সংবাদ সংস্থা রয়টার্স আশংকা প্রকাশ করেছে দু দশক পরে এই অর্থবর্ষে কর আদায় কমতে পারে ৷ আয়কর দফতরের প্রায় আধ ডজন সিনিয়র অফিসার তেমনই ইঙ্গিত দিয়েছে সংবাদ সংস্থা ৷ অর্থনৈতিক মন্দা এবং কর্পোরেট ট্যাক্স কমানোর দরুন এমনটা ঘটেছে বলেই তাদের অনুমান।