ইসলামাবাদ: কাশ্মীরিদের জন্য নাকি উদ্বিগ্ন পাকিস্তান৷ এতটাই উদ্বিগ্ন যে ভুয়ো ছবি দিয়ে দু:খপ্রকাশ করতেও সমস্যা নেই তাদের৷ রাষ্ট্রসংঘে এর আগেও পাকিস্তানের প্রকাশ করা ছবি ভুয়ো বলে প্রমাণিত হয়েছে৷ তবে এবার যে ঘটনা ঘটল, তাতে পাকিস্তান কোথায় মুখ লুকোবে তা ভাববার বিষয়৷

ভারতে পাকিস্তানের প্রাক্তন রাষ্ট্রদূত আব্দুল বসিত ঠিক এমনই কাজ করেছেন৷ সম্প্রতি তাঁর একটি রি-ট্যুইটে শোরগোল পড়েছে নেটদুনিয়ায়৷ উঠেছে নিন্দার ঝড়৷ ঠিক কি করেছেন তিনি? সোমবার আব্দুল বসিত একটি রিট্যুইট করেন, যেখানে এক নীলছবির দুনিয়ার তারকার ছবি পোস্ট করেন৷ সাথে লেখেন এই কাশ্মীরি ভারতীয় সেনার প্যালেট গানের গুলিতে নিজের দৃষ্টিশক্তি হারিয়েছে৷

উল্লেখ্য যে পর্নস্টারের ছবি আব্দুল বসিত পোস্ট করেছেন, তিনি জনি সিনস৷ খুব স্বাভাবিকভাবেই প্রাক্তন পাক প্রতিনিধির এই ভুলে হাসির রোল ওঠে নেট দুনিয়ায়৷ আব্দুল বসিতের ভুল প্রথম ধরান পাকিস্তানের সাংবাদিক নাইলা ইনায়ত৷ বেশ কটাক্ষ করেই পাক প্রতিনিধির ভুলে ভরা পোস্টের উত্তর দেন তিনি৷

ইনায়ত যে স্ক্রিনশটটি দিয়েছেন, তাতে দেখা যাচ্ছে আবদুল বসিত জনি সিনসের ছবি দিয়ে রি-ট্যুইট করেছেন এবং তাতে লেখা ইনি অনন্তনাগের বাসিন্দা ইউসুফ৷ যার দৃষ্টি নষ্ট হয়েছে প্যালেট আঘাতে৷ এই বিষয়ে পাকিস্তানিদের সরব হওয়ার আবেদনও জানিয়েছেন তিনি৷

অবশ্য পাকিস্তানের এই ধরণের ভুল হামেশাই চোখে পড়ে৷ কয়েকদিন আগেই এক প্রকাশ্য জনসভায় বক্তব্য রাখছিলেন পাকিস্তানের রেলমন্ত্রী শেখ রশিদ। চলতি কাশ্মীর ইস্যু নিয়ে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর বিরুদ্ধে সুর চড়িয়েছিলেন তিনি। ঠিক তখনই বিদ্যুতের ঝটকা লাগে তাঁর। আর এই সম্পূর্ণ ঘটনাটি মোবাইল বন্দী হয়ে যায় নিমেষেই। যা বর্তমানে নেটিজেনদের রসদ হিসেবে ব্যবহৃত হচ্ছে। সোশ্যাল মিডিয়ায় তুমুলভাবে ছড়িয়ে পড়ে ভিডিওটি।

দিন কয়েক আগেই হাসির খোরাক জোগান পাকিস্তান মুত্তাহিদা কোয়ামি মুভমেন্ট পার্টির ফাউন্ডার আলতাফ হুসেন। একজন পাকিস্তানি যখন উদার কন্ঠে গেয়ে ওঠেন, ‘সারে জাহা সে আচ্ছা, হিন্দুস্তান হামারা’, তা মজার উপাদান জোগায় বৈকি। ঠক সেই কাজটাই করলেন তিনি৷