নয়াদিল্লি: রেস্তরাঁয় হেনস্থা হয়ে বিস্ফোরক মন্তব্য মিস ইন্ডিয়ার! ঘটনার প্রতিক্রিয়া জানিয়ে এষা বললেন, এমনভাবে ওই রেস্তরাঁর মালিক আমার দিকে তাকাচ্ছিল, মনে হচ্ছিল চোখ দিয়েই আমাকে ধর্ষণ করে ফেলবে।

ঘটনা হল, দিল্লিতে এক রেস্টুরেন্টে খেতে গিয়েছিলেন এষা। নিজের বন্ধুদের সঙ্গে ডিনারে গিয়েছিলেন অভিনেত্রী। সেখানে গিয়েই হেনস্থার শিকার হন তিনি। এষা লক্ষ্য করেন, একজন অজ্ঞাত পরিচয় ব্যক্তি তার দিকে এমনভাবে তাকিয়ে আছে, যাতে মনে হচ্ছে চোখ দিয়েই ধর্ষণ ফেলবেন উনি। অনেক ক্ষণ ধরে বিষয়টি লক্ষ্য করে এইভাবে আচরণ করতে তাকে বারণ করেন এষা।

কিন্তু প্রথমে অভিনেত্রীর কথায় পাত্তা দেন নি ওই ব্যক্তি। পরপর তিনবার বলার পরে তবেই ছাড় পান তিনি। অশ্লীল এই দৃশ্য মোবাইল বন্দী হয়ে যায় নিমেষেই। এই ভিডিওতে দেখা গিয়েছে অভিনেত্রীর বর্ণনা করা পুরো বিষয়টি। এই ভিডিও শেয়ার করে এষা জানিয়েছেন, “এই মানুষটি আমাকে চোখ দিয়েই ধর্ষণ করে দেবে, এইভাবে কেউ কাউকে দেখে না। ভাগ্যিস আমার সঙ্গে দু’জন বর্ডিগাড ছিল আমার। রেস্টুরেন্টের সিসিটিভি দেখলেও আপনারা বুঝে যাবেন। ইনি নিশ্চয় কাউকে ধর্ষণ করবেন ভবিষ্যতে।”

তিনি আরও জানান, “যদি আমার মতো একজন তারকা দেশে নিরাপত্তার অভাব বোধ করেন তাহলে, আর চার-পাঁচজন মহিলারা কী অবস্থাতে আছেন? আমার নিজস্ব বডিগার্ড আছে তাও এই অবস্থা! নিজেকে ধর্ষিতা মনে হচ্ছে আমার। এইসব মানুষকে পিটিয়ে মারা উচিত।”

এষা নিজের টুইটার অ্যাকাউন্টে আরও লিখেছেন, “মানছি উনি আমাকে ছুঁয়ে দেখেননি, কিন্তু যেভাবে একজন নৃশংস পশুর মতো আমাকে দেখছিলেন সেটা কোনও ফ্যান কিংবা সাধারণ মানুষ দেখে না।” গতকাল রাতেই ওই ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় পোষ্ট করেছেন অভিনেত্রী।