ফাইল ছবি

মুম্বই: সপ্তম পে কমিশনকে মাথায় রেখে স্টেট ব্যাংক নেমে পড়ল সরকারি কর্মীদের আর বেশি করে গৃহঋণের জন্য আকৃষ্ট করতে৷ ব্যাংকের কর্মীদের জন্যে বিশেষ গৃহঋণের সিদ্ধান্ত নিল দেশের বৃহত্তম ব্যাংকের৷ এক্ষেত্রে ঋণ পরিশোধের শর্ত আরও  সুবিধাজনক করা হয়েছে বলে সর্বভারতীয় এক সংবাদমাধ্যমের প্রকাশিত খবরে জানানো হয়েছে৷

কেন্দ্রীয় ও রাজ্য সরকারের কর্মী, রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থার কর্মী এবং প্রতিরক্ষা ক্ষেত্রে কর্মীরা এই ঋণ পাওয়ার  যোগ্য৷ এই গৃহঋণ প্রকল্পের বিশেষত্ব হল সরকারি কর্মীদের ঋণ পরিশোধের বয়সসীমা ৭৫ বছর রাখা হচ্ছে যেখানে সাধারণত এই বয়েসের উর্ধ্বসীমা ৭০ বছর৷  তাছাড়া সুদে সুবিধা মিলবে৷

সরকারি কর্মচারিদের জন্য আনা হয়েছে ‘প্রিভিলেজ হোম লোন’ প্রকল্প এবং প্রতিরক্ষায় নিযু্ক্তদের জন্য আনা হল ‘শৌর্য হোম লোন’৷ এই দুটি গৃহঋণ প্রকল্পেই সুদের হারে ৫ বেসিস পয়েন্ট (এক বেসিস পয়েন্ট অর্থাৎ শতকরার একভাগের একশো ভাগ) ছাড় মিলবে৷

এই ছাড় মিলবে তখনই যেখানে সরাসরি বেতন থেকে ঋণ পরিশোধের টাকা কাটার সুযোগ থাকবে৷ তাছাড়া প্রসেসিং ফি মুকুব করা হচ্ছে৷ এছাড়া অন্য ব্যাংক অথবা আর্থিক সংস্থার কাছ থেকে নেওয়া গৃহঋণের বাকি অংশ পরিশোধের জন্য স্টেট ব্যাংকের এই প্রকল্পে  স্থানান্তর করা যাবে৷