ঢাকা: আসন্ন সিটি নির্বাচনে পুরোটাই ইভিএমের মাধ্যমে হবে। কীভাবে এই ভোট মেশিন ব্যবহার করতে হবে সে ব্যাপারে সাধারণ মানুষকে সচেতন করতে এগিয়ে এসেছে নির্বাচন কমিশন। এমন কি সোশ্যাল মিডিয়াতেও ইভিএম সম্পর্কে সচেতনতা মূলক বার্তা দিয়ে চলেছে কমিশনের কর্তারা। জানা গিয়েছে, আগামী দিনে সিনেমা হলে চিত্র প্রদর্শনের মাধ্যমেও ইভিএমের প্রচার চালাবে নির্বাচন কমিশন।

এর আগে সরস্বতী পুজোর দিন ভোট হবে কিনা সেই নিয়ে বিভ্রান্তি ছড়ায়। পরে হাইকোর্ট রায় দেয় ৩০ জানুয়ারি নির্বাচন হবে। ভোট ও পুজো দুটোই পবিত্র তাই একই দিনে অনুষ্ঠিত হলে কোনও অসুবিধে নেই। সাফ জানিয়ে দিদেয় নির্বাচন কমিশনও। একদি দিনে দুই অনুষ্ঠান পড়ে যাওয়ায় বিভ্রান্তির সৃষ্টি হয়েছিল। মঙ্গলবার হাইকোর্ট রায় দেয় ৩০ জানুয়ারি ঢাকা সিটি নির্বাচন অনুষ্ঠিত হচ্ছে।

নির্বাচন পিছানোর আবেদন খারিজ করে দেয় হাইকোর্ট। আগামী ৩০ জানুয়ারি অনুষ্ঠিত হবে ঢাকা সিটি নির্বাচন। ওই দিন সরস্বতী পুজো পড়ে যাওয়ায় নির্বাচন পিছানোর দাবি তুলেছিলেন আইনজীবীরা। মঙ্গলবার সেই আবেদন খারিজ করে দিল হাইকোর্ট। ঢাকা উত্তর এবং ঢাকা দক্ষিণে সিটি নির্বাচন হবে ৩০ জানুয়ারি। এর পর সংখ্যালঘু ছাত্র সমাজ ও সংগঠনগুলি ক্ষুব্ধ হয়ে নির্বাচন কমিশন ঘেরাও করে।

বিক্ষোভের মাঝেই সিটি করপোরেশন নির্বাচনের আগে জমজমাট ঢাকা। সিটি করপোরেশন নির্বাচন উপলক্ষে উৎসবে মেতেছে শহর। গত বাংলাদেশের জাতীয় নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়েছিল। এবারের নির্বাচনে কোন দল ক্ষমতায় আসবে সেদিকেই তাকিয়ে আছে ঢাকার মানুষ। কোন দল ক্ষমতায় আসবে এবং সাধারণ মানুষের জন্য কতটা কাজ করবে সেটাই এখন দেখার।

আওয়ামী লীগ প্রার্থীরা উৎসবের আমেজ দেখছেন। তুলনায় অন্যরা কিছুটা হতাশ। গত বারের নির্বাচনে ছাপ্পা ভোটের অভিযোগ ওঠে শাসক দলের বিরুদ্ধে। ভোটের দিন স্কুলের দরজা বন্ধ করে ভোট কারানোর অভিযোগ আওয়ামী লীগের বিরুদ্ধে। এমন অভিযোগ আনে বিরোধী দল বিএনপি।

এবারের নির্বাচনে ঢাকা দক্ষিণ সিটি থেকে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হচ্ছেন শেখ হাসিনার আওয়ামী লীগের চারজন প্রার্থী। ইতিমধ্যেই ওই চার প্রার্থীকে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় জয়ী বলে ঘোষণা করেছেন রিটার্নিং কর্মকর্তা। চারজনের মধ্যে আছেন ২৫ নম্বর সাধারণ ওয়ার্ডের মো. আনোয়ার ইকবাল, ৪৩ নম্বর সাধারণ ওয়ার্ডের মো. আরিফ হোসেন, সংরক্ষিত ৬ নম্বর ওয়ার্ডের নারগীস মাহতাব এবং সংরক্ষিত ৮ নম্বর ওয়ার্ডের নিলুফার রহমান।