কায়রো: আইএস হামলায় রক্তাক্ত মিশর৷ সে দেশে জারি হয়েছে জরুরি পরিস্থিতি৷ আগামি তিন মাস অর্থাৎ ৯০ দিন এই অবস্থা জারি থাকবে৷ ঘোষণা করেছেন মিশেরের প্রেসিডেন্ট আব্দুল ফাতাহ আল সিসি৷ বিবৃতিতে তিনি জঙ্গি হামলা কড়া নিন্দা করেছেন৷ প্রেসিডেন্টের নির্দেশের পরই বিশেষ জঙ্গি দমন অভিযান শুরু হচ্ছে নীল নদের দেশে৷ প্রস্তুত মিশরীয় সেনা বাহিনী৷ হামলা দায় নিয়েছে ইসলামিক স্টেট৷ জঙ্গি সংগঠনের আন্তর্জাতিক মুখপত্র ‘আমাক’ নিউজ এজেন্সি সেই বার্তা প্রচার করে৷

রবিবার খ্রিষ্টান ধর্মীয় দিবস পালনের মুহূর্তে জোড়া বিস্ফোরণে রক্তাক্ত হয় মিশর৷ দেশের তানতা ও আলেকজান্দ্রিয়ায় দুটি চার্চে নাশকতা হয়েছে৷হামলায় নিহত কমপক্ষে ৪৫৷ জানাচ্ছে বিভিন্ন আন্তর্জাতিক সংবাদ সংস্থা৷ মিশরে জঙ্গি হামলার কড়া নিন্দা করেছে আন্তর্জাতিক মহল৷ বিবৃতিতে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী মিশরীয় জনগণের প্রতি সমবেদনা প্রকাশ করেছেন৷ সন্ত্রাসবাদ দমনে মিশর সরকারের পাশে থাকার আশ্বাস দিয়েছেন৷

রক্তাক্ত রবিবার পার করে সোমবার বেদনাতুর দিন দেখছে মিশর৷ রাজধানী কায়রোতে জারি হয়েছে বিশেষ নিরাপত্তা৷ আন্তর্জাতিক পর্যটনের কেন্দ্র মিশর৷ বিভিন্ন দেশ থেকে মিশরে আসনে অনেকে৷ ভিনদেশী পর্যটকদের নিরাপত্তা নিয়ে চিন্তিত সরকার৷ পরিস্থিতি বিবেচনা করে প্রেসিডেন্ট আল সিসি দেশের প্রতিরক্ষা বিশেষজ্ঞদের সঙ্গে ম্যারাথন বৈঠক করেছেন৷ তার পরেই জারি হয়েছে তিন মাসের জরুরি অবস্থা৷ জঙ্গি হামলা জড়িত থাকার সন্দেহে শুরু হয়েছে ধরপাকড়৷ এমনই দাবি বিভিন্ন মানবাধিকার সংগঠনের৷