কলকাতা২৪x৭: স্বাস্থ্য ভালো রাখতে ফল খেতে হবে এরকম কথা আমরা ছোটবেলা থেকেই শুনে আসেছি। সকালে উঠে ফলের জুস কিংবা রাতে খাওয়ার পর স্বাস্থ্য ভালো রাখার জন্য অনেকে ফল খেয়ে থাকে। ফল নিয়ে একাধিক মানুষের মধ্যে নানারকম মতবাদ রয়েছে। অনেকর বাড়িতে শোনা যায় খালি পেটে ফল খেতে হয় না, খালি পেটে ফল খেলে নাকি স্বাস্থ্যের ক্ষতি হয়। কিন্তু আপনি জানেন কি সঠিক সময় ফল না খেলে শরীরে দানা বাঁধতে পারে নানা রকম সমস্যা, এমনকি ভুল সময়ে ফল খাওয়ার ফলে বেড়ে যেতে পারে শরীরের ওজন।

আর সেই কারণে ফল খেলে স্বাস্থ্য ভালো হয় এমনটা সব সময় সঠিক নয়। নির্দিষ্ট নিয়মে এবং নির্দিষ্ট সময়ে ফল খেলে তবে ভালো থাকতে পারে স্বাস্থ্য। পাঠকদের স্বাস্থ্য সুরক্ষার কথা মাথায় রেখে কোন সময় ফল খেলে স্বাস্থ্য ভালো থাকে অথবা কোন সময় ফল খাওয়া উচিত তা এই প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হল।

অনেক মানুষকে দেখা যায় সকাল, দুপুর এবং রাতে যেকোনো সময় খাওয়ার পরে ফল খেয়ে থাকে। তাদের যুক্তি খাবার পরে ফল খেলে হজম হয় খুব জলদি। কিন্তু ডাক্তাররা বলছে খাবার পরে কখনও ফল খাওয়া উচিত নয়। কারণ হিসেবে তারা জানিয়েছেন, এই অভ্যাসের ফলে শরীরে হজমের নানা সমস্যার সৃষ্টি হতে পারে। বুক জ্বালা, ঢেকুরের মতো নানা অসুবিধার সম্মুখীন হতে হয় ভরা পেটে ফল খেলে। সেই কারণে সব সময় খালি পেটে ফল খাওয়া উচিত। খালি পেটে ফল খেলে ফলের প্রয়োজনীয় উপাদান যেমন জল ফাইবার এগুলো খুব সহজে হজম হয় এবং স্বাস্থ্য ভালো থাকে।

একটা কুসংস্কার প্রায়ই আমরা শুনে এসেছি খালি পেটে ফল খেতে নেই কিছু খেয়ে তারপরে ফল খেতে হয়। কিন্তু এটি একটি ভ্রান্ত ধারণা বলছে ডাক্তাররা। তারা জানাচ্ছে সকালে উঠে খালি পেটে ফল খেলে শরীরের পক্ষে অনেক উপকার মেলে। খালি পেটে ফল খেলে ফলের মধ্যে থাকা অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট শরীরের টক্সিন দূর করতে সাহায্য করে।

ঘুমোতে যাওয়ার আগে অনেকে অল্পবিস্তর ফল খেয়ে থাকেন। তবে ডাক্তাররা বলছে ঘুমোতে যাওয়ার আগে ফল খাওয়ার বিষয়টি এড়িয়ে চলা উচিত। তার কারণ হিসেবে ব্যাখ্যা করে তারা জানিয়েছেন শর্করা শরীরের এনার্জি লেভেল বাড়িয়ে দেয়, যার ফলে ঘুম আসতে অনেক দেরি হয় এবং মাঝরাতে অনেক সময় ঘুম ভেঙে যাওয়ার সম্ভাবনা থাকে।

খাবারের সঙ্গে ফল খাওয়া একদমই উচিত নয়। খাবারের সঙ্গে ফল খেলে তা আমাদের শরীরের পক্ষে খুব ক্ষতিকর। এই অভ্যেসে আমাদের ওজন বেড়ে যেতে পারে। শুধু ফল খেলে সেই বিষয়টা আলাদা, কিন্তু যদি অন্য কোন খাবারের সঙ্গে আপনি ফল খেয়ে থাকেন তাহলে খাবার হজম হতে অনেক সমস্যা দেখা দেয়।

লাল-নীল-গেরুয়া...! 'রঙ' ছাড়া সংবাদ খুঁজে পাওয়া কঠিন। কোন খবরটা 'খাচ্ছে'? সেটাই কি শেষ কথা? নাকি আসল সত্যিটার নাম 'সংবাদ'! 'ব্রেকিং' আর প্রাইম টাইমের পিছনে দৌড়তে গিয়ে দেওয়ালে পিঠ ঠেকেছে সত্যিকারের সাংবাদিকতার। অর্থ আর চোখ রাঙানিতে হাত বাঁধা সাংবাদিকদের। কিন্তু, গণতন্ত্রের চতুর্থ স্তম্ভে 'রঙ' লাগানোয় বিশ্বাসী নই আমরা। আর মৃত্যুশয্যা থেকে ফিরিয়ে আনতে পারেন আপনারাই। সোশ্যালের ওয়াল জুড়ে বিনামূল্যে পাওয়া খবরে 'ফেক' তকমা জুড়ে যাচ্ছে না তো? আসলে পৃথিবীতে কোনও কিছুই 'ফ্রি' নয়। তাই, আপনার দেওয়া একটি টাকাও অক্সিজেন জোগাতে পারে। স্বতন্ত্র সাংবাদিকতার স্বার্থে আপনার স্বল্প অনুদানও মূল্যবান। পাশে থাকুন।.