ভুবনেশ্বর: নতুন মন্ত্রী হিসেবে শপথ নেওয়ার পরই গোমাংস নিয়ে মন্তব্য করলেন কেন্দ্রীয় পর্যটনমন্ত্রী কেজে আলফোন্স। বিদেশি পর্যটকদের উদ্দেশে তিনি বললেন ‘নিজের দেশে গোমাংস খান, তারপর ভারতে আসুন। ‘

গোরক্ষা ও গোমাংস নিষিদ্ধ হওয়ায় পর্যটনে কোনও প্রভাব পড়েছে কিনা সেবিষয়ে প্রশ্ন করা হলে তিনি বলেন, ‘সাবই নিজেদের দেশে গোমাংস খেতে পারেন, তারপরই ভারতে আসবেন। ‘ ভুবনেশ্বরে ‘ইন্ডিয়ান অ্যাসোসিয়েশন অফ ট্যুর অপারেটরসে’র অনুষ্ঠানে উপস্থিত হয়ে একথা বলেন তিনি।

আরও পড়ুন: গোরক্ষা-তাণ্ডব রুখতে ‘টাস্ক ফোর্স’ গঠনের নির্দেশ সুপ্রিম কোর্টের

এর আগে কেরলে গিয়ে আলফোন্স বলেন, ‘ঠিক যেমন গোয়ায় মুখ্যমন্ত্রী মনোহর পারিক্কর বলেছেন যে সেখানে গোমাংস খাওয়ায় কোনও বাধা-নিষেধ নেই, ঠিক তেমনই কেরলেও গোমাংস খাওয়া যাবে। ‘ তিনি আরও বলেন, যে তিনি খাদ্যমন্ত্রী নন, যে এসব বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেবেন। তিনি আরও বলেন, পর্যটন মন্ত্রকের উন্নয়নের জন্য মানুষের কাছে মতামত চাইবেন তিনি। কেউ এসে যদি তাঁকে কোনও পরামর্শ দেন, তাহলে একমাসের মধ্যে তিনি তা বাস্তবায়িত করার ব্যবস্থা করবেন।

আরও পড়ুন: ইয়ং বেঙ্গলের গোমাংস নিয়ে বাড়াবাড়িটাও বরদাস্ত করেননি ডিরোজিও

অন্যদিকে, গোরক্ষা নিয়ে দেশজুড়ে চলা হিংসার ঘটনা বন্ধ করতে প্রতিটি জেলায় উচ্চপদস্থ পুলিশ অফিসার মোতায়েন করার নির্দেশ দিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট৷ প্রতিটি রাজ্যে প্রতিটি জেলায় একজন করে উচ্চপদস্থ পুলিশ আধিকারিক নিযুক্ত করার নির্দেশও দেওয়া হয়েছে। রাজ্যগুলিকে এক সপ্তাহের মধ্যে টাস্ক ফোর্স তৈরির কথাও বলা হয়েছে৷ সুপ্রিম কোর্ট কেন্দ্র এবং রাজ্য সরকারকে এই বিষয়ে জানায়, গোরক্ষার নামে যারা আইন হাতে তুলে নিচ্ছে তাদের বিরুদ্ধে কড়া ব্যবস্থা নিতেই এই উদ্যোগ৷