গিরিশ পার্ক মেট্রো স্টেশনের বাইরের ছবি

স্টাফ রিপোর্টার, কলকাতা: শহর জুড়ে ফের তীব্র ভূমিকম্প। ভূমিকম্পের উৎস্থল নেপাল বলে জানা গিয়েছে। রিখটার স্কেলে কম্পনের তীব্রতা ছিল ৭.৪। মঙ্গলবার বেলা ১২টা ৩৫ নাগাদ এই ভূমিকম্প হয়। বাড়ি ছেড়ে রাস্তায় নেমে এসেছেন সাধারণ মানুষ। মোবাইল নেটওয়ার্ক স্তব্ধ। আফটার শকও অনুভূত হয়েছে। একবার নয়, একাধিকবার কেঁপে উঠল মহানগর। শুধু কলকাতা নয়, উত্তরবঙ্গও কেঁপে উঠেছে মঙ্গলবারের কম্পনে। পাশাপাশি দিল্লি, বিহার ও ঝাড়খণ্ডেও অনুভূত হল ভূমিকম্প। নেপাল, আফগানিস্তান ও বাংলাদেশের কম্পনে ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে বলে জানা গিয়েছে। সূত্রের খবর, প্রায় ২০ সেকেন্ড ধরে কেঁপেছে পৃথিবীপৃষ্ঠ। বিশেষ সূত্রের খবর, কাঠমান্ডু থেকে প্রায় ৮৩ কিলোমিটার পূর্বে নেপাল-চিন সীমান্তের ঝাম-এ ভূপৃষ্ঠ থেকে প্রায় সাড়ে ১৮ কিলোমিটার গভীরে এই কম্পনের উৎসস্থল। তবে ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ এখনও পর্যন্ত জানা যায়নি।kolkata-eathquake

 নজর রাখুন দিনভর আপডেটের জন্য-

বেলা ১২টা ৩৩ মিনিট: প্রথমবার কেঁপে উঠল কলকাতা।

বেলা ১২টা ৩৮ মিনিট: বন্ধ হয়ে যায় কলকাতা বিমানবন্দরে বিমান ওঠানামা। ফের বেলা ১টা ১১ মিনিট নাগাদ চালু হল বিমান পরিষেবা।

বেলা সাড়ে বারোটা: সল্টেলেকে বহুতল ছেড়ে নেমে আসছেন বেসরকারি সংস্থার কর্মীরা।

বেলা ১টা ১১ মিনিট: ৩৩ মিনিটে দ্বিতীয়বার কেঁপে উঠল কলকাতা।

বেলা ২টো: এয়ার ইন্ডিয়ার বিমান এ আই ৭৪৭ বিমানটি কলকাতা থেকে কাঠমাণ্ডুর উদ্দেশ্যে রওনা হওয়ার কথা ছিল সাড়ে বারোটায়। ভূমিকম্পের কারণে বিমানটির যাত্রা পিছিয়ে দেওয়া হয়। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত বিমানটি এখনও ছাড়েনি। বিমানবন্দরে ক্ষোভ-আতঙ্ক।

বেলা ২টো ৩০ মিনিট: নবান্নে খোলা হল ২৪ ঘণ্টার হেল্পলাইন নম্বর- 1070 , 22143526

কলকাতায় মেট্রো, বিমান চলাচল বন্ধ

চিন ও নেপালে ভয়াবহ ভূমিকম্প

ভয়াবহ ভূমিকম্পে কাঁপল বাংলাদেশও

 

এই সংক্রান্ত আরও খবর-

ভূমিকম্প প্রবণতায় প্রথম দশেই কলকাতা

আবারও ভূমিকম্প হলে কী করবেন

ফিরে দেখা বিধ্বংসী ভূমিকম্প

 

 

 

Comments are closed.