দুবাই: রাজস্থান রয়্যালসের কাছে গত ম্যাচে হেরে তাদের প্লে-অফের আশা যে কার্যত শেষ হয়ে গিয়েছে তা স্বীকার করে নিয়েছেন খোদ অধিনায়ক মহেন্দ্র সিং ধোনি। মরুশহরে পৌঁছনোর পর থেকে যে বিপত্তি চেন্নাই সুপার কিংস শিবিরে শুরু হয়েছিল তা থেকে বেরিয়ে এসে চলতি টুর্নামেন্টে মেজাজে পাওয়া যায়নি ইয়েলো ব্রিগেডকে। প্রতিপদে অনুভব হয়েছে অভিজ্ঞ ব্যাটসম্যান সুরেশ রায়নার অনুপস্থিতি।

সবমিলিয়ে ১০ ম্যাচে মাত্র তিনটি জয়ে লিগ টেবিলে একেবারে শেষে থাকা দলটায় ফের বিপত্তি। লিগের বাকি ম্যাচগুলোতে ইউটিলিটি অল-রাউন্ডার ডোয়েন ব্র্যাভোর সার্ভিস পাবে না তারা। কুঁচকির চোটে অবশিষ্ট আইপিএল থেকে ছিটকে গেলেন এই ক্যারিবিয়ান ক্রিকেটার। গত দিল্লি ক্যাপিটালস ম্যাচে চোটের কারণে শেষ ওভারে বল করতে পারেননি ব্র্যাভো। রাজস্থানের বিরুদ্ধে শেষ ম্যাচে তাঁকে ছাড়াই মাঠে নেমেছিল সিএসকে। এবার চোটের কারণে টুর্নামেন্টের বাকি ম্যাচগুলোতে খেলা হবে না অল-রাউন্ড ক্রিকেটারের।

সংবাদসংস্থা এএনআই’কে চেন্নাই সুপার কিংস সিইও কাশী বিশ্বনাথন এই খবরটি নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানিয়েছেন, ‘ব্র্যাভো কুঁচকির চোটের কারণে চলতি আইপিএলে আর কোনও ম্যাচ খেলতে পারবেন না। দু-একদিনের মধ্যেই ও দেশে ফিরে যাবে।’ গত ম্যাচে হারের পর ধোনি জানিয়েছিলেন প্লে-অফের সম্ভাবনা শেষ হয়ে গেলেও বাকি ম্যাচগুলি জিতে সসম্মানে লিগ শেষ করার চেষ্টা করবেন তারা। ব্র্যাভোর ছিটকে যাওয়া সেই পরিকল্পনায় যে ধাক্কা দেবে, তাতে সন্দেহ নেই।

উল্লেখ্য, মরুশহরে আইপিএলে খেলতে উড়ে যাওয়ার পর থেকেই চেন্নাই শিবিরে দুর্যোগ শুরু হয়। কোয়ারেন্টাইনে থাকাকালীন কোভিড পরীক্ষায় দুই ক্রিকেটের সহ স্কোয়াডের ১৩ জন সদস্য আক্রান্ত হয়েছিলেন করোনায়। এরপর দলের সঙ্গে আমিরশাহী পৌঁছেও কয়েকদিনের মধ্যে পারিবারিক কারণে মরুশহর ছেড়ে দেশে ফেরেন রায়না। কোভিড আতঙ্কে দলের সঙ্গে যোগই দেননি অভিজ্ঞ স্পিনার হরভজন সিং। যদিও এত সবকিছুর পরেও মুম্বই ইন্ডিয়ান্সকে হারিয়েই লিগ অভিযান শুরু করেছিল তিনবারের চ্যাম্পিয়নরা। কিন্তু সময় যত এগিয়েছে ধোনির দলের দুর্বলতাগুলো প্রকাশ পেয়েছে এক এক করে।

যার প্রমাণ লিগ টেবিল। ১০ ম্যাচ পর মাত্র ৬ পয়েন্ট নিয়ে লিগ টেবিলে সবার নীচে অবস্থান ইয়েলো ব্রিগেডের। যে দৃশ্যের সঙ্গে একেবারেই পরিচিত নন অনুরাগীরা। আগামী শুক্রবার মুম্বই ইন্ডিয়ান্সের বিরুদ্ধে একাদশ ম্যাচে মাঠে নামবে সিএসকে।

জেলবন্দি তথাকথিত অপরাধীদের আলোর জগতে ফিরিয়ে এনে নজির স্থাপন করেছেন। মুখোমুখি নৃত্যশিল্পী অলোকানন্দা রায়।