ফাইল ছবি

পাটনা: প্রিয়াঙ্কা গান্ধী প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে ‘দুর্যোধন’ বলে কটাক্ষ করেছিলেন৷ কিন্তু রাজীব তনয়ার এই মন্তব্যকে সমর্থন জানালেন না রাবড়ি দেবী৷ তাঁর জবাব, প্রিয়াঙ্কা ভুল বলেছেন৷ তাঁর আরও কিছু বিশেষণ প্রয়োগ করা উচিত ছিল৷ যেমন জল্লাদ৷ মোদীর সঙ্গে জল্লাদ শব্দটাই মানানসই৷

বিহারের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রীর কাছে প্রিয়াঙ্কার দুর্যোধন মন্তব্যের প্রতিক্রিয়া চাওয়া হয়৷ জবাবে লালু ঘরণী বলেন, ‘‘দুর্যোধন বলে ভুল করেছেন৷ অন্য শব্দ প্রয়োগ করা উচিত ছিল৷ ওরা সবাই জল্লাদ৷ বিচারপতি এবং সাংবাদিকদের যারা অপহরণ করে খুন করে৷ এদের মানসিকতা দেখে অবাক লাগে৷ এদের জল্লাদ বলাই ভালো৷’’

মঙ্গলবার প্রিয়াঙ্কা গান্ধী মহাভারতের প্রধান ভিলেন চরিত্র দুর্যোধনের সঙ্গে মোদীর তুলনা করেন৷ জানান, মোদীর যে ঔদ্ধত্য আছে তা মহাভারতের দুর্যোধনের ছিল৷ আর এর জন্যই তাঁর পতন হয়েছিল৷ মোদীরও হবে৷

এদিকে এদিনই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে মুঘল সম্রাট ঔরঙ্গজেবের সঙ্গে তুলনা করেন কংগ্রেস নেতা সঞ্জয় নিরুপম৷ বারাণসীতে দাঁড়িয়ে নমোর বিরুদ্ধে তোপ দেগে জানান, উনি হলেন আধুনিক যুগের ঔরঙ্গজেব৷

বারাণসীতে তৈরি হচ্ছে কাশী বিশ্বনাথ করিডর৷ সেই করিডর তৈরির জন্য ছোট মন্দির, পুরানো বাড়ি, স্থাপত্য ভাঙা হয়েছে বলে বিরোধীদের অভিযোগ৷ একই অভিযোগ করেন সঞ্জয় নিরুপমও৷ আর সেই কথা বলতে গিয়ে মোদীকে ষষ্ঠ মুঘল সম্রাটের সঙ্গে তুলনা করেন৷ সঞ্জয় নিরুপম বলেন, ‘‘মোদীর নির্দেশে শ’য়ে শ’য়ে পুরানো মন্দির ভাঙা হয়েছে৷ কারণ কাশি বিশ্বনাথ করিডর তৈরি করা হচ্ছে৷ ঔরঙ্গজেবও হিন্দু মন্দির ধ্বংস করেছিলেন৷ মোদী আর মুঘল সম্রাটের মধ্যে কোনও ফারাক নেই৷ উনি হলেন আধুনিক যুগের ঔরঙ্গজেব৷’’

অতীতে মোদীকে বহুবার আক্রমণ করতে দেখা যায় সঞ্জয় নিরুপমকে৷ বুধবার বারাণসীতে দাঁড়িয়ে আরও একটি চাঞ্চল্যকর অভিযোগ করেন৷ বলেন, মোদী নাকি নির্দেশ দিয়েছেন, যারা বিশ্বনাথ মন্দির দর্শনে আসবে তাদের কাছ থেকে ৫৫০ টাকা দর্শন ফি নিতে হবে৷ ঔরঙ্গজেব যা করেননি মোদী সেই সব কাজ করার ধৃষ্ট্রতা দেখাচ্ছেন৷ তাঁর এই নির্দেশ সেই কথাই বলছে৷