কেমন মানুষ আপনি? বিচার করতে পারবেন নিজে নিজেই৷ অথবা কাছের লোককেও ঠিক বুঝতে পারছেন না? সেটাও বিচার করতে পারবেন খুব সহজেই৷ উপায় রয়েছে আপনার হাতের কাছেই৷

হাতের রেখা দেখে নয়, কোনও মানুষের হাতের আঙুলের ফাঁক দেখে বলে দেওয়া যায় সে কেমন মানুষ৷ অবাক লাগলেও এই পদ্ধতি ব্যবহার করেই দীর্ঘদিন হস্তরেখা সম্পর্কে বলে আসছেন বিশারদরা৷ আপনিও জেনে নিতে পারেন সেই কৌশল৷

আঙুলের দৈর্ঘ্য বা দুটি আঙুলের মধ্যে ফাঁক- এই দুটি বিষয়ই মাথায় রাখতে হয় মানুষ যাচাইয়ের ক্ষেত্রে৷ অনেক কিছুই এর মাধ্যমে আপনি জানতে পারবেন৷

হস্তরেখাবিদরা বলছেন, কোনও মানুষের তর্জনীতে থাকে গুরুর প্রভাব৷ মধ্যমায় বিরাজ করে শনির প্রবাব৷ অনামিকাতে সূর্য ও কড়ে আঙুল বা কনিষ্ঠাতে থাকে বুধের প্রভাব৷ এই ধরেই বিচার করা শুরু করেন বিশারদরা৷

১৷ তর্জনী ও মধ্যমার মধ্যে যদি ফাঁক থাকে, তবে ধরা হয়, ওই ব্যক্তি নিজের কথা বলতে গেলে কোনও সংশয়ে ভোগেন না। কিন্তু সেই ফাঁক যদি বেশি হয়, সেই ব্যক্তি স্বার্থপর হন। আর যদি সেই ফাঁক বেশ কম হয়, তাহলে সেই ব্যক্তি অন্তর্মুখী হন।

২৷ অনামিকা ও কড়ে আঙুলের মধ্যেও খুব বেশি দূরত্ব থাকাকে অশুভ ধরা হয়। যদি দূরত্ব থাকে তাহলে সেই ব্যক্তি নিষ্ঠুর ও কলহ-প্রিয় হন।

৩৷ মধ্যমা আর অনামিকার মধ্যে দূরত্ব বাঞ্ছনীয় নয়। এই দুই আঙুলের মধ্যে দূরত্ব না থাকা শুভ। এই দুই আঙুলের মধ্যে দূরত্ব থাকলে সেই ব্যক্তি বেপরোয়া ও অসভ্য হন।

স্বামীর সঙ্গে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে বস্ত্র ব্যবসাকে অন্যমাত্রা দিয়েছেন।'প্রশ্ন অনেকে'-এ মুখোমুখি দশভূজা স্বর্ণালী কাঞ্জিলাল I