করাচি: বুধবারই বিশ্বকাপে খেলতে ইংল্যান্ড রওনা হচ্ছে ভারতীয় ক্রিকেট দল৷ লন্ডনের বিমান ধরার আগে মুম্বইয়ে সাংবাদিক বৈঠকে প্রাক্তন অধিনায়ক মহেন্দ্র সিং ধোনির প্রশংসা ঝড়ে পড়ে কোচ রবি শাস্ত্রীর৷ এর আগেই অবশ্য ধোনিকে ভারতীয় ক্রিকেট দলের ব্রেন অ্যাখ্যা দেন পাক কিংবদন্তি জাহির আব্বাস৷

ধোনির নেতৃত্বে দু’টি বিশ্বকাপ জিতেছে ভারত৷ ২০০৭-এ প্রথম টি-২০ বিশ্বকাপে ধোনির নেতৃত্বে ট্রফি জেতে টিম ইন্ডিয়া৷ ফাইনালে পাকিস্তানকে হারিয়ে প্রথম টি-২০ বিশ্বচ্যাম্পিয়নের মর্যাদা পায় ‘মেন ইন ব্লু’৷ তার পর ২০১১ বিশ্বকাপে দেশকে ট্রফি এনে দেন ধোনি৷ কপিল দেবের ২৮ বছর পর দেশকে দ্বিতীয় ওয়ান ডে বিশ্বকাপ দেন মাহি৷ ভারতের সেরা অধিনায়ক তিনিই৷ দু-দু’টি বিশ্বকাপ ছাড়াও ২০১৩ চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি এবং দু’বার এশিয়া কাপ (২০১০ ও ২০১৬) জেতে টিম ধোনি৷

এই বিশ্বকাপেও ধোনি ভারতীয় দলের ট্রাম্প কার্ড৷ এমনটাই মনে করেন প্রাক্তন পাক অধিনায়ক৷ বিশ্বকাপের মতো বড় মঞ্চে ধোনির অভিজ্ঞতা কাজে লাগবে বলে মনে করেন আব্বাস৷ তিনি বলেন, ‘ভারতীয় দলে ধোনির মতো জিনিয়াস রয়েছে৷ ও হল ভারতীয় ক্রিকেট দলের ব্রেন৷ দু’টি বিশ্বকাপ জয়ের ওর অভিজ্ঞতা ভারতের কাজে লাগবে৷ ক্যাপ্টেন ও কোচের কাছে ধোনি হল ট্রাম্প কার্ড৷’

এর আগে দু’টি বিশ্বকাপ খেললেও নেতা হিসেবে এটি প্রথম বিশ্বকাপ বিরাট কোহলির৷ নেতা হিসেবে বিশ্বকাপে নিজেকে প্রমাণ করতে মুখিয়ে থাকবে বিরাট৷ আব্বাস বলেন, ‘বিরাট কোহলির নেতৃত্বে প্রথমবার বিশ্বকাপ খেলতে নামছে ভারত৷ সুতরাং নেতা হিসেবে বড় মঞ্চে নিজেকে প্রমাণ করতে মরিয়া রয়েছে বিরাট৷’ দু’ বছর আগে ইংল্যান্ডের মাটিতে বিরাটের নেতৃত্বে চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির ফাইনালে ওঠে ভারত৷ কিন্তু ফাইনালে পাকিস্তানের কাছে হারে টিম কোহলি৷

সদ্য সমাপ্ত ইংল্যান্ড-পাকিস্তান ওয়ান ডে সিরিজে হাই-স্কোরিং রানের দিকে তাকিয়ে বিশ্বকাপে ভারতীয় ব্যাটিং লাইন-আপ ৪০০ থেকে ৪৫০ রান তুলতে পারে বলে মনে করেন এশিয়ার ব্র্যাডম্যান৷ আব্বাস বলেন, ‘সদ্যসমাপ্ত পাকিস্তান-ইংল্যান্ড সিরিজে দেখেছি ৩০০ বেশি রান চেজ হয়েছে৷ বিশ্বকাপে ৪৫০ রানও উঠতে পারে৷ পিচে কোনও ঘাস নেই, সুতরাং বোলার সাহায্য পাবে বলে মনে হয় না৷ এই পরিস্থিতিতে ভারতের শক্তিশালী ব্যাটিং লাইন-আপের সুবিধা পাবে৷ ইংল্যান্ডের পিচ এখনও যেন ব্যাটিং প্যারাডাইস৷’

৩০ মে ইংল্যান্ড ও ওয়েলসের মাটিতে শুরু হচ্ছে ওয়ান ডে বিশ্বকাপের দ্বাদশ সংস্করণ৷ কেনিংটন ওভালে উদ্বোধনী ম্যাচে আয়োজক ইংল্যান্ডের সামনে দক্ষিণ আফ্রিকা৷ ভারত বিশ্বকাপ অভিযান শুরু করবে আরও কয়েকদিন পর৷ ৫ জুন টাইটানিকের শহর সাউদাম্পটনের রোজ বোলে বিরাটদেরও প্রথম প্রতিপক্ষ দক্ষিণ আফ্রিকা৷