রাঁচি: ধোনির বাইক প্রেমের কথা সবারই জানা৷ দু’চাকাই নয়, চার চাকার প্রতিও আলাদা ভালোবাসা রয়েছে মাহির৷ অতীতে ম্যাচ জয়ের পর সতীর্থের জেতা পুরস্কার গাড়ির ড্রাইভারের সিটে চেপে বসেছেন৷

আরও পড়ুন- সিরিজ জিতে ধোনির ‘শেষ ম্যাচ’ স্মরণীয় করতে চায় বিরাটবাহিনী

শুধু কী তাই, ধোনির গাড়ি প্রেমের কথা উল্লেখ করে আত্মজীবনীতে ভিভিএস লক্ষ্মণ লিখেছেন, তাঁর শততম টেস্টের পর মাঠ থেকে হোটেল পর্যন্ত টিমবাস চালিয়েছিলেন ধোনি৷ এবার রাঁচিতে ফিরে সতীর্থদের জন্য ফের চালকের ভূমিকায় পাওয়া গেল মিস্টার কুলকে৷

বুধবার রাঁচি পৌঁছে বিমানবন্দর থেকে দুই সতীর্থকে নিজের বিলাসবহুল হ্যামার গাড়িটিতে করে নিজের ফার্মহাউসে নিয়ে যান মাহি৷ প্রিয় হ্যামার গাড়িটি নিজেই চালিয়েছেন ধোনি৷ শুধু পন্ত-কেদারই নয়, ধোনির গ্যারাজে অন্য গাড়িগুলিতে করে বিমানবন্দর ছাড়েন বিরাট-রোহিতরা৷ এরপর ধোনির ফার্মহাউসে দলের জন্য ছিল স্পেশাল খানাপিনা৷ প্রাক্তন বিশ্বজয়ী অধিনায়কের বাড়িতে স্মরণীয় সেই সন্ধের মুহূর্ত ফ্রেমবন্দী করে সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করেছেন রিস্ট স্পিনার যুবেন্দ্র চাহাল৷

আরও পড়ুন- সিরিজ খোয়াল ভারতীয় দল

ড্রাইভার ধোনির ছবিই বৃহস্পতিবার ঘোরাফেরা করছে সোশ্যাল মিডিয়ায়৷ লাইক কমেন্ট, শেয়ারে ছবি ভাইরাল করে মাহি অনুরাগীরা লিখলেন, সিটবেল্ট বেঁধে নিন…চালক যখন ধোনি! উল্লেখ্যে রাঁচিতে এটাই সম্ভবত শেষ ম্যাচ খেলতে চলেছেন মাহি৷

শুক্রবার অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে সিরিজ জয়ের লক্ষ্যে নামবেন ধোনি-কোহলিরা৷ এরপর শেষ দুই ওয়ান ডে ’ খেলে জুনে ইংল্যান্ডের মাটিতে বিশ্বকাপ৷ মাঝে দেশের লোকসভা নির্বাচনের কারণে আইপিএল ভেন্যুর হেরফের  হলে রাঁচিতে ম্যাচ পড়তে পারে৷ তা না হলে, এটাই সম্ভবত রাঁচির মাঠে শেষ ম্যাচ মিস্টার কুলের৷ সেকারণেই ধোনি ভক্তদের একাংশ মনে করছেন,ঘরের মাঠে শেষ ম্যাচে ভক্তদের খুশ করতে ব্যাট হাতে ঝড় তুলতে পারেন ধোনি৷ সেকরাণেই ধোনি অনুরাগীরা বলছেন, সিটবেল্ট বেঁধে নিন! ভক্তদের আশ্বস্ত করে শুক্রবার রাঁচিতে ধোনি ঝড় আছড়ে পড়ে কিনা সেটাই এখন দেখার৷