স্টাফ রিপোর্টার, বাঁকুড়া: আবারও একটা ভোটের সম্মুখীন সারা দেশের সঙ্গে বাংলারা মানুষ৷ নিয়ম করে ভোট আসে ভোট যায়। কিন্তু রাস্তার হাল আর বদলায় না। এমনটাই অভিযোগ স্থানীয় বাসিন্দাদের। বাঁকুড়ার ওন্দা-কৃষ্ণনগর-তালডাংরা প্রায় ১৫ কিলোমিটার রাস্তা দীর্ঘদিন বেহাল।

স্থানীয়দের অভিযোগ পিচ উঠে বড় বড় গর্ত তৈরী হয়েছে গোটা রাস্তা জুড়ে। বেশ কিছু জায়গায় ঐ রাস্তার পাথর উঠে প্রায়শই দুর্ঘটনার কারণ হয়ে উঠছে। কিন্তু সেই রাস্তা সংস্কারের কোন উদ্যোগ নেই। এমনটাই দাবী ঐ এলাকার মানুষের।

ওন্দা-কৃষ্ণনগর-তালডাংরা রাস্তার উপর নির্ভরশীল পেঁচাড়া, ধবনী, শ্যামনগর, আঁধারা, চিঙ্গানী সহ প্রায় দেড়শোটি গ্রামের লক্ষাধিক মানুষ। ছাত্র ছাত্রীদের স্কুল কলেজ, হাসপাতাল, প্রশাসনিক কার্যালয় থেকে প্রতিদিনকার রুটি রুজির সন্ধানে এই রাস্তাই ব্যবহৃত হয়। বিকল্প আর কোন রাস্তা না থাকায় একপ্রকার জীবনের ঝুঁকি নিয়েই যাতায়াত করতে হয় সব বয়সী মানুষকে।

এই এলাকারই বাসিন্দা মহাদেব রজক, নারায়ণ সাওয়াদের অভিযোগ, রাস্তার পাথরে মোটরবাই থেকে সাইকেলের টায়ার কেটে যাচ্ছে। এমনকি বড় লরি বা ঐ জাতীয় বড় গাড়ির টায়ারে লেগে রাস্তার পাথর উড়ে গিয়ে পথচলতি মানুষকে আঘাত করছে। এছাড়া ছোটো বড় দূর্ঘটনার ঘটনা আকছার ঘটছে বলেও অভিযোগ। বিষয়টি একাধিকবার প্রশাসনকে জানিয়েও কোন কাজ হয়নি বলে স্থানীয় বাসিন্দাদের একাংশের অভিযোগ।

তবে এবিষয়ে বাঁকুড়া জেলা পরিষদের পূর্ত, কার্য ও পরিবহন বিভাগের দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মাধ্যক্ষ শিবাজী বন্দ্যোপাধ্যায় ঐ রাস্তার টেণ্ডার প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে বলে জানিয়েছেন।