file pic
file pic

নয়াদিল্লি: করোনা মহামারীতে বিধস্ত গোটাদেশ। মারণ ব্যাধির দাপট রুখতে কার্যত নাভিশ্বাস ওঠার যোগার। সংক্রমণ রুখতে জারি রয়েছে লকডাউন। পৃথিবীর এমন কঠিন অসুখে প্রকৃতি যেন বেঁচেছে হাঁফ ছেঁড়ে। খাঁচাবন্দি মানুষকে সাময়িক স্বস্তি দিতে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় প্রবল বরুণ দেবের আশীর্বাদে প্রবল বজ্রঝড়ে ভিজল রাজধানীর রাজপথ।

মেঘের গর্জন আর সঙ্গে শিলাবৃষ্টি। এদিন সন্ধ্যার ক্ষনিকের বৃষ্টিতে ভিজল রাজধানী দিল্লির অলিগলি। তবে মৌসম ভবন সূত্রে খবর, পশ্চিমী ঝঞ্জার কারনে এমন বজ্রঝড় ও বৃষ্টি হয়েছে। আর শুধু দিল্লিই নয়, সন্ধ্যার পর থেকেই প্রবল হাওয়া সঙ্গে ঝড় বৃষ্টির সাক্ষী ছিলো পার্শ্ববর্তী রাজ্য চণ্ডীগড়ও।

পশ্চিমী ঝঞ্জার কারণে এদিন সন্ধ্যার পর থেকে ঘন্টায় ৭২ কিলোমিটার গতিবেগে দিল্লি সহ পার্শ্ববর্তী নয়ডা, ফরিদাবাদ, গাজিয়াবাদ সহ গুরুগ্রাম, মিরাট, হাপুর, সাহাদারা ঝাঝোর এবং সোনিপাত জেলায় প্রায় ঘন্টা দুয়েক ধরে প্রবল বজ্রঝড় হয়। এরফলে রাজধানীর রাস্তা বড় বড় বেশকিছু গাছ ভেঙে পড়ে।

শিলাবৃষ্টির জেরে দুধসাদা বর্ণে পরিণত হয় রাস্তাঘাট সমস্ত কিছু। আর এই ছবিই সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট হতেই মুহুর্তের মধ্যে লাইক,কমেন্ট ও শেয়ারের বন্যা বইয়ে দেয়। বৈশাখী সসন্ধ্যায় অফুরন্ত অবসরে কার্যত ঘরে বসে প্রকৃতির এমন দৃশ্য দেখে আপ্লুত নেটিজেনরা। এক কথায় বলা চলে, দেশের অন্যান্য প্রান্ত যখন গরমে হাঁসফাস করছে, তখন দিল্লির এই ছবি যেন দুধের স্বাদ ঘোলে মেটানোর মতো।

স্বামীর সঙ্গে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে বস্ত্র ব্যবসাকে অন্যমাত্রা দিয়েছেন।'প্রশ্ন অনেকে'-এ মুখোমুখি দশভূজা স্বর্ণালী কাঞ্জিলাল I