নয়াদিল্লি: রাজধানীর করোনা সংক্রমণ উদ্বেগ বাড়াচ্ছে। ১ লক্ষের দোরগোড়ায় পৌঁছেছে সংক্রমণ। পাল্লা দিয়ে বাড়ছে মৃত্যুও। গত ২৪ ঘণ্টায় দিল্লিতে নতুন করে ২ হাজার ২৪৪ জন নোভেল করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। গত ২৪ ঘণ্টায় দিল্লিতে করোনায় মৃত্যু হয়েছে আরও ৬৩ জনের। সব মিলিয়ে রাজধানীর করোনা পরিস্থিতি ভয়াবহ আকার নিয়েছে।

বেলাগাম সংক্রমণে দিশেহারা দিল্লির সরকার। প্রতিদিন বাড়ছে আক্রান্তের সংখ্যা। নতুন করে ২ হাজারেরও বেশি মানুষ দিল্লিতে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন।

সোমবার সকাল পর্যন্ত স্বাস্থ্যমন্ত্রকের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী দিল্লিতে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে ৯৯ হাজার ৪৪৪। করোনায় মৃত্যু বেড়ে ৩ হাজার ৬৭। এখনও পর্যন্ত ৭১ হাজার ৩৩৯ জন করোনামুক্ত হয়ে বাড়ি ফিরেছেন। এই মুহুর্তে দিল্লিতে করোনা অ্যাক্টিভ কেস ২৫ হাজার ৩৮টি।

সংক্রমণে বেড়ি পরাতে দিল্লিতে করেনা পরীক্ষার হার বহুলাংশএ বাড়িয়েছে দিল্লির সরকার। স্বাস্থ্য দফতর সূত্রে জানা গিয়েছে, এখনও পর্যন্ত দিল্লিতে ৬ লক্ষ ৪৩ হাজার ৫০৪ জনের করোনা পরীক্ষা করানো হয়েছে।

দিল্লির অরবিন্দ কেজরিওয়ালের সরকার ‘কোভিড-১৯ ওয়ার রুম’ তৈরির উদ্যোগ নিয়েছে। করোনার সংক্রমণ ছড়ানো রুখতে গোটা দিল্লিতে ২৪ ঘণ্টা নজরদারি চালানো হবে ওই ওয়ার রুম থেকে।

বিশেষ ওই উদ্যোগের দায়িত্বে থাকবেন ২৫ জন বিশেষজ্ঞ। সংক্রমণ ছড়ানো রুখতে কী কী পদক্ষেপ করা হবে তা নিয়ে ওই বিশেষজ্ঞরাই যাবতীয় সিদ্ধান্ত নেবেন সরকারের সঙ্গে কথা বলে। আগামী কয়েক দিনের মধ্যেই দিল্লিতে করোনার বিরুদ্ধে লড়াইয়ে ‘কোভিড-১৯ ওয়ার রুম’ তৈরি করে ফেলবে কেজরিওয়াল সরকার।

পপ্রশ্ন অনেক: চতুর্থ পর্ব

বর্ণ বৈষম্য নিয়ে যে প্রশ্ন, তার সমাধান কী শুধুই মাঝে মাঝে কিছু প্রতিবাদ