ওয়াশিংটন: করোনা আতঙ্কে কাঁপছে সারা বিশ্ব। এরই মধ্যে জোর কদমে চলছে ভ্যাকসিন নিয়ে পরীক্ষা। কিছু পরীক্ষার ফলাফলও সামনে আসতে শুরু করেছে। সুসংবাদ রয়েছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে চলা ভ্যাকসিন ট্রায়াল নিয়ে।

জানানো হয়েছে, মানুষের উপর করোনার ভ্যাকসিনের ট্রায়ালে অত্যন্ত ইতিবাচক ফলাফল পেয়েছেন গবেষকেরা। তাঁদের দাবি এই ভ্যাকসিন একেবারে নিরাপদ এবং এই ভ্যাকসিনে বেড়েছে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতাও।

চর্চায় রয়েছে মর্ডানা’র ভ্যাকসিনেরও নাম। আমেরিকায় এই ভ্যাকসিনের প্রথম দুটি ট্রায়ালে খুশি গবেষকেরা। এখন এই ভ্যাকসিনের চূড়ান্ত ট্রায়াল হবে। তাতে সফল হলেই বাজারে আসবে ভ্যাকসিন।

মার্চ মাসে মোট ৪৫ জনের ওপর ট্রায়াল দেওয়া এই ভ্যাকসিনের ফলাফলের জন্য গবেষকরা অধীর আগ্রহে অপেক্ষা করেছিলেন। মঙ্গলবার জানানো হয়েছে এই ভ্যাকসিনের ফলে শরীরে সংক্রমণ প্রতিরোধকারী অ্যান্টিবডি বিকশিত হয়।

এছাড়া বলা হয়েছে ট্রায়ালে অংশ নেওয়া ব্যক্তিদের প্রথম ধাপে কোনও পার্শ্ব প্রতিক্রিয়া দেখা যায়নি। তবে কিছু লোক দ্বিতীয় ডোজের পরে ক্লান্তি, মাথাব্যথা, ঠান্ডা লাগা, জ্বর এর মতো কিছু প্রতিক্রিয়া ধরা পড়েছে। যাকে স্বাভাবিক বলেই মানা হচ্ছে।

করোনার জেরে বিশ্বে লক্ষ লক্ষ মানুষ আক্রান্ত, মৃত্যু হয়েছে প্রায় সাড়ে ৫ লক্ষেরও বেশি মানুষের। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, এই মহামারীকে রোখার একমাত্র উপায় হল ভ্যাকসিন। তাই সেই চেষ্টাতেই উঠে পড়ে লেগেছেন গবেষকেরা।

মর্ডানা জানাচ্ছে, তাঁরা খুব শ্রীঘ্রই এই ভ্যাকসিনটি তৈরির চেষ্টা চালানো হচ্ছে। সরকারি ভাবে আশা করা হচ্ছে, বছরের শেষের দিকে এই ভাকসিন সংক্রান্ত সুসংবাদ আসতে চলেছে।

প্রশ্ন অনেক: দশম পর্ব

রবীন্দ্রনাথ শুধু বিশ্বকবিই শুধু নন, ছিলেন সমাজ সংস্কারকও