স্টাফ রিপোর্টার, বারুইপুর: বিষ খেয়ে আত্মঘাতী হলেন এক দম্পতি। তবে কি কারণে স্বামী স্ত্রী দু’জনে একসঙ্গে বিষ খেয়ে আত্মঘাতী হলেন সে বিষয়ে এখনও ধোঁয়াশা রয়েছে। মৃতদের নাম সুজন সর্দার (২৬) ও মৌসুমি সর্দার (২১)। ঘটনাটি ঘটেছে দক্ষিণ ২৪ পরগণার বারুইপুর থানা এলাকার পূর্ব বৃন্দাখালি গ্রামে।

প্রসঙ্গত, গত বৃহস্পতিবার দু’জনে একসঙ্গে বিষ খেলে তাঁদেরকে উদ্ধার করে বারুইপুর মহকুমা হাসপাতালে ভরতি করেন পরিবারের সদস্যরা। সেখানেই সোমবার বিকেলে মৃত্যু হয় দু’জনের। স্থানীয় সূত্রে খবর, মাত্র সাত মাস আগে প্রেম করে বিয়ে হয় বারুইপুরের পূর্ব বৃন্দাখালি গ্রামের সুজন সর্দারের সঙ্গে মথুরাপুরের মৌসুমি সর্দারের। সুজন পেশায় মৎস্যজীবী। অত্যন্ত দরিদ্রার সঙ্গে সংসার চলতো তাঁদের। যৌথ পরিবারে থাকলেও রোজগার কম থাকায় মানসিক অবসাদে ভুগত সুজন। তবে স্বামী স্ত্রীর মধ্যে যথেষ্ট মিল ছিল।

বৃহস্পতিবার সকালে পোস্ট অফিসের অ্যাকাউন্টে জমানো টাকা নিয়ে স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে সামান্য অশান্তি হয়েছিল। এরপর রাতে ভাত খেয়ে ঘরের দরজা বন্ধ করে দু’জনেই কীটনাশক খায় বলে অনুমান পরিবারের সদস্যদের। রাতেই তাঁদের উদ্ধার করে বারুইপুর মহকুমা হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে গত চার দিন মৃত্যুর সঙ্গে লড়াই করে সোমবার প্রাণ হারায় দু’জনেই। খবর পেয়ে বারুইপুর থানার পুলিশ মৃতদেহ উদ্ধার করে৷ পরে দেহ দু’টি ময়না তদন্তে পাঠানো হয়। তবে ঠিক কি কারণে ওই দম্পতি আত্মঘাতী হলেন সে বিষয়ে তদন্ত শুরু করেছে বারুইপুর থানার পুলিশ। এই ঘটনায় গোটা এলাকায় নেমে এসেছে শোকের ছায়া।