চারপাশে আলো ঝলমল। সবাই সবার কাজে ব্যস্ত। কিন্তু কোনও দিকে নজর নেই। পার্কের মধ্যে যৌনতায় মত্ত যুগল। হঠাত প্রকাশ্যে পার্কের মধ্যে যুগলের এই কান্ড কারখানায় সবাই চমকে যান। অনেকে আবার দাঁড়িয়েও পড়েন। এমনকি, কেউ কেউ আবার মোবাইলে এই ঘটনার ছবি তুলে রাখতেও ব্যস্ত।

কিন্তু সব কিছুকে ছাপিয়ে গিয়েছেন এই পথচারী। এই ঘটনা দেখে নিজেকে আর ঠিক রাখতে পারেননি। ছুটে এসে একেবারে নিজের সাইকেলটি তাঁদের মাথায় বসিয়ে দেন। মারাত্মক লাগে যৌনতায় ব্যস্ত থাকা পুরুষ মানুষটির। কিন্তু তাঁদের থামানো যায়নি। এরপরেও চালিয়ে গিয়েছেন তাদের কাজ।

ইন্টারনেটে ইতিমধ্যে ভাইরাল হয়ে গিয়েছে এই ভিডিও। কেউ হাসছেন কেউ আবার বলছেন এভাবে প্রকাশ্যে যে কাজ করেছেন এর জন্যে এই কাজই ঠিক। চাঞ্চল্যকর ঘটনাটি ঘটেছে মার্কিনমুলুকে।

লাল-নীল-গেরুয়া...! 'রঙ' ছাড়া সংবাদ খুঁজে পাওয়া কঠিন। কোন খবরটা 'খাচ্ছে'? সেটাই কি শেষ কথা? নাকি আসল সত্যিটার নাম 'সংবাদ'! 'ব্রেকিং' আর প্রাইম টাইমের পিছনে দৌড়তে গিয়ে দেওয়ালে পিঠ ঠেকেছে সত্যিকারের সাংবাদিকতার। অর্থ আর চোখ রাঙানিতে হাত বাঁধা সাংবাদিকদের। কিন্তু, গণতন্ত্রের চতুর্থ স্তম্ভে 'রঙ' লাগানোয় বিশ্বাসী নই আমরা। আর মৃত্যুশয্যা থেকে ফিরিয়ে আনতে পারেন আপনারাই। সোশ্যালের ওয়াল জুড়ে বিনামূল্যে পাওয়া খবরে 'ফেক' তকমা জুড়ে যাচ্ছে না তো? আসলে পৃথিবীতে কোনও কিছুই 'ফ্রি' নয়। তাই, আপনার দেওয়া একটি টাকাও অক্সিজেন জোগাতে পারে। স্বতন্ত্র সাংবাদিকতার স্বার্থে আপনার স্বল্প অনুদানও মূল্যবান। পাশে থাকুন।.