প্রীতম সরকার, রায়গঞ্জঃ রায়গঞ্জ পুর এলাকার মধ্যে করোনা রোগীর সংখ্যা বৃদ্ধি পেয়েছে। যা নিয়ে তীব্র আতঙ্ক তৈরি হয়েছে। আর সেই কারণে ফের লকডাউনের পথে নামছে রায়গঞ্জ পুরসভা। রায়গঞ্জ পুরসভা সূত্রে জানা গিয়েছে, রায়গঞ্জ পুরসভায় মহকুমাশাসক, মিউনিসিপ্যালিটির চেয়ারম্যান ও ভাইস চেয়ারম্যানের উপস্থিতিতে এক জরুরি বৈঠক হয়। তাতেই কড়াকড়ি ভাবে রায়গঞ্জ পুর এলাকায় লকডাউনের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

সোমবার থেকে সকাল ১১ টা পর্যন্ত বাজার খোলা থাকলেও কোনরকম জটলা করা যাবে না বলে সিদ্ধান্ত হয়েছে। পাশাপাশি অত্যাবশকীয় পন্যের দোকান খোলা থাকলে রাস্তায় যেকোনো রকম ভিড় হলে আইনত ব্যবস্থা নেওয়া হবে। ১১ টার পরে কোনো বাজার বা দোকান খোলা থাকবে না। অকারণে রাস্তায় কেউ বেরোলেই প্রশাসন কড়া ব্যবস্থা নেবে।

এদিকে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন রায়গঞ্জ পুরসভার প্রাক্তন ভাইস চেয়ারম্যান। উত্তর দিনাজপুর জেলা কংগ্রেস সূত্রে প্রাক্তন উপ-পুরপিতার করোনা আক্রান্তের বিষয়টি জানা গিয়েছে। শারীরিক ভাবে সুস্থ রয়েছেন ওই কংগ্রেস নেতা। এদিকে ক্রমেই ভয়ঙ্কর আকার ধারণ করছে কোভিড-১৯।

গত ২৪ ঘন্টায় রায়গঞ্জ পুর এলাকায় পাঁচ করোনা পজিটিভ রোগীর সন্ধান মিলেছে। আক্রান্ত সকলকেই চিকিৎসার জন্য কোভিড হাসপাতালে নিয়ে গিয়েছে স্বাস্থ্য দফতর।

রায়গঞ্জ পুরসভার চেয়ারম্যান সন্দীপ বিশ্বাস জানিয়েছেন, গত ২৪ ঘন্টায় রায়গঞ্জ পুরসভা এলাকায় পাঁচ করোনা রোগীর সন্ধান মিলেছে। পুরসভা ও স্বাস্থ্য দপ্তরের তৎপরতায় তাঁদের সকলকেই চিকিৎসার জন্য রায়গঞ্জ কোভিড হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। ৪ নম্বর ওয়ার্ডে এক দম্পতি, ২০ নম্বর ওয়ার্ডে দুই ব্যক্তি ও ৭ নম্বর ওয়ার্ডের এক বাসিন্দার দেহে করোনা ভাইরাস মিলেছে। শহরে বন্ধ রাখা হয়েছে রায়গঞ্জের মোহনবাটি বাজার এবং রায়গঞ্জ ষ্টেশন বাজার।

পপ্রশ্ন অনেক: চতুর্থ পর্ব

বর্ণ বৈষম্য নিয়ে যে প্রশ্ন, তার সমাধান কী শুধুই মাঝে মাঝে কিছু প্রতিবাদ