রোম ও মাদ্রিদ: করোনা হামলায় বেড়েই চলেছে মৃত্যু। এশিয়ায় চিন-ইরানের পর ইউরোপের ইতালির স্পেন এখন আরও দুই মৃত্যুর দেশ। আবার আমেরিকাও ভাইরাসের আরও এক হামলার কেন্দ্র। করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে শনিবার পর্যন্ত বিশ্বজুড়ে মৃতের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ২৭ হাজার ৩৬০ জন। হু এবং ওয়ার্ল্ডোমিটারের তথ্য এমনই। তবে আফ্রিকায় ঢুকলেও এখনও তেমন মারণ যজ্ঞ সেখানে শুরু করেনি করোনা।

বিবিসি জানাচ্ছে, করোনাভাইরাসে এখনও পর্যন্ত আক্রান্ত হয়েছেন ৫ লক্ষ ৯৭ হাজার ৭২ জন। মারা গেছেন ২৭ হাজার ৩৬০ জন। সেরে উঠেছেন ১ লক্ষ ৩১ হাজার ৬৯৮ জন।

মৃত্যুর দেশ ইতালি-স্পেন: আন্তর্জাতিক সংবাদ মাধ্যমের রিপোর্ট, করোনা ছোবলে মৃতের তালিকায় শীর্ষে রয়েছে ইতালি। দেশটিতে মৃতের সংখ্যা ৯ হাজার ১৩৪ জন। আক্রান্ত হয়েছেন ৮৬ হাজার ৪৯৮ জন। আরও মৃত্যুর আশঙ্কা থাকছে। ইতালি সরকারের দাবি, বিরাট বিপর্যয়ে পুরোপুরি ভেঙে গিয়েছে দেশের চিকিৎসা পরিকাঠামো। মৃতের হিসাবে দ্বিতীয় স্থানে স্পেন। মৃতের সংখ্যা ৫ হাজার ১৩৮ জন। মোট আক্রান্তের সংখ্যা ৬৫ হাজার ৭১৯ জন। স্পেন সরকারের আশঙ্কা বিপদের আরও কিছু পর্ব এখনো দেখতে হবে।

 

চিন: স্পেনের পর সবচেয়ে বেশি মৃত্যু হয়েছে চিনে। গত বছর ডিসেম্বরে এই চিন থেকেই করোনাভাইরাস ছড়াতে শুরু করে। প্রথমদিকে চিনের উহান শহরে করোনা হামলায় মৃত্যু মিছিল চলেছে। ৩ হাজার ১৭৭ জনের মৃত্যু হয়েছে। তবে চিনে এখন করোন তার প্রভাব কমিয়েছে। সেই সঙ্গে কমেছে মৃত্যুর হার।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র: ইউরোপের মতোই মার্কিন মুলুক কাঁপছে করোনায়।এখনও পর্যন্ত সবচেয়ে বেশি আক্রান্তের সংখ্যা আমেরিকাতেই। ১ লক্ষের বেশি এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। মৃত হয়েছে এক হাজার ৭০৬ জন। করোনা মহামারিতে আগামী চার মাসে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে ৮১ হাজারেরও বেশি মানুষের মৃত্যু হতে পারে বলে আশঙ্কা।